পাতা:শ্রীশ্রীহরি লীলামৃত.djvu/৬৭

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


f مس Qb" শ্ৰীশ্ৰীহরিলীলামৃত । t t t অর্থ কিছু তাম্রমুদ্র। দিয়া যাব শীঘ্র ॥ , কেহব। যাইত মনে মানসা করিয়া । যে খানে থাকিত প্রভু ল’য়ে ভক্তগণ। . ভক্তগণ সঙ্গে করি হরিপ্রেম রসে । নাম গান ভাবে মত্ত মনের উল্লাসে ॥ দেশ ভরি শব্দ হ’ল মধুর মধুর। যশোমস্ত ছেলে হরি হয়েছে ঠাকুর ॥ রোগযুক্ত লোক যত প্ৰভু স্থানে যায়। কীৰ্ত্তনের ধূলা অঙ্গে মাখিবারে কয়। অমনি সারিয়া ব্যাধি করে সংকীৰ্ত্তন। কেহ বা লোটায় ধ'রে প্রভুর চরণ ॥ কেহ কেহ মনে মনে করেন মানস । ব্যাধিযুক্তি হোকু মোর পূর্ণ হোক আশ । হরিলুঠ দিব এনে শ্রীহরির স্থানে । কেহ কেহ মুদ্রা দিব মনে মনে মানে ॥ কীৰ্ত্তন আসিয়া কেহ গায় মাখে ধূলি । রোগমুক্ত হ’য়ে নাচে দুই বাহু তুলি । কখন কখন প্রভু নিজ ভক্ত সঙ্গে । হাসে কঁদে নাচে গায় কৃষ্ণ কথা রঙ্গে ॥ কখন কখন প্রভু নিশ্চিন্ত থাকয়--JoyBot (আলাপ) ১১:৫৪, ৫ এপ্রিল ২০১৬ (ইউটিসি)– কোন ব্যাধিযুক্ত লোক এমন সময় ॥ . রোগীরা মানস সব করিত হরিষে। . আরোগ্য হইলে ব্যাধি দাস হ’ব এসে ॥ কেহ বা কহিত দাস হইনু এখনে। ভক্তগণ রাখিতেন আর আর স্থানে । হরিলুঠ কত জনে দিত সংকীৰ্ত্তনে ৷ এইভাবে প্রভু রহিলেন তিনমাস। - একদিন ভক্তগণ বলি প্রভু পাশ ॥ । প্রভুর নিকটে কহে কর যোড় করি । যাইব আমর। সবে আপনার বাড়ী ৷ প্রভু বলে কেবা আত্ম কেবা কার পর । আমি কার কে আমার মায়া বাড়ী ঘর ॥ ভক্তগণে বলে প্রভো! দয়া হয় যদি । ল’য়ে চল সকলে শ্ৰীধাম ওঢ়ার্কাদি । শুনিয়া হাসিয়া কহে প্ৰভু ইচ্ছাময়। কর ইচ্ছা যাহা তোমাদের ইচ্ছা হয়। হ’য়ে তুষ্ট মহাহৃষ্ট পরস্পর কয়। শ্ৰীধামে কে যাবিতোরা আয় আয় আয় ॥ এত বলি সবে মেলি সাজিল তরণী । যার বাড়ী যাহা ছিল দ্রব্য দিল আনি ॥. --তাম্রমুদ্র রৌপ্যমুদ্র। কেহ দিল ধান্য। কেহ দধি কেহ ঘূত পাত্র পরিপূর্ণ। কেহ দিল তরকারী কুষ্মাণ্ড কদলী । - পঙ্ক রন্তা থোড় মোচা পদ্ম মূল কলি। ছোলা বুট মুগ মাস মটর ডাউল। . মনঃ প্রাণ দেহ সপিলাম ঐচরণে ॥ দেহের এ রোগ মম হউক আরোগ্য। কেহবা কহিত দিব সোয়। পাচ আনা । কেহবা কহিত আমি দিব সোয়া আন ॥ কেহব। কহিত আমি দিব পাচ সিকা । কেহবা কহিত দিব সোয়া পাচ সিকা ॥ আরোগ্য হইলে ব্যাধি দিতেন আনিয়া ॥ প্রভুর মুখের বাক্যে রোগ মুক্ত হয় । এইমত রোগী কত আসে আর যায়। : পাচ সাত গ্রামে ক্রমে শব্দ হ’ল ভারি। কত লোকে আসিত দেখিব বলে হরি। চাউল মজুত হত দুই তিন মন ॥ টাকাগুলি যত সব রোগীরা আনিত । কতক হইত ব্যয় কতক থাকিত , প্রভুর সম্মুখে এনে হাজির করিত। বস্ত দশ পরিপূর্ণ নূতন চাউল । , ছানা দধি সন্দেশাদিগুড় দশখান। আতপ তণ্ডুল দশমন পরিমাণ ॥ দুইশত নারিকেল হাজার সুপারি। পাচ হাত,মুখে এক সাজাইল তরী। তর পরিপূর্ণ করি ঠাকুরে উঠায়। হরি বলে তরী খুলে ওঢ়ার্কাদি যায় ॥ ওঢ়ার্কাদি ঘাটে তরী লাগইল এসে । ভক্তগণে দ্রব্য আনে ঠাকুরের বাসে। প্রভু যায় আগু আগু পিছে ভক্তগণ। যাইতে আসিতে পথে করে সংকীৰ্ত্তন। ঠাকুর আসিয়া বসিলেন নিজ ধরে। ভক্তগণ দ্রব্য এনে রাখে ভারোভারে। টাকা সিকি আধুলী তাম্রের মুদ্রা যত । সব শুদ্ধ পরিমাণ টাকা এক শত ॥ প্রিয় ভক্ত রামচাদ সেই টাকা ল’য়ে। লক্ষ্মীমার নিক্লটেতে দিলেন আনিয়ে ॥ ঠাকুর তাহার কিছু হাতে না ধরিত ৷ ঠাকুর বৃলেন তবে ইহা তুলে লও। কি তবলাপন মনে আর কিবা চাও;