পাতা:ষোল আনি (জলধর সেন).djvu/১৫১

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


| 이 ] সিদ্ধেশ্বরের স্ত্রীর শ্রাদ্ধ শেষ হইয়া গেলে একদিন অপরাহ্ন কালে সিদ্ধেশ্বর ও হরিহরকে ডাকিয়া রমামুন্দরী বলিলেন “একটা বিশেষ পরামর্শের জন্ত তোমাদের ডেকেছি। বোমা ত চলে গেলেন ; এপন এ সংসারই বা দেখে কে, হরিহরের সংসারেরই বা ভার নেয় কে ? আমি ত বুড়ো হয়ে গেলাম ; আজ আছি ক’লি নেই। তোমাদের কি উপায় হবে, সে কথা চিন্তা করেছ কি ?” সিদ্ধেশ্বর বলিলেন “মা, চিন্তার দায় থেকে আমি একেবারে অব্যাচতি পেয়েছি। কোন দিনই তেমন চিন্তা করি নাই ; যা বা একটু আদর্টুকু সময় সময় ভাবতাম,ছুইজনকে ওপারে পাঠিয়ে তা ও ছেড়ে দিয়েছি। আমাকে আর কিছু চিন্তা করতে বোলো না ।” রমাসুন্দরী হরিহরের দিকে চাহিয়া বলিলেন “হরিহর, তুমিও তোমার দাদার কথাগুলোই আবার বল ; তা হলেই ঠিক হয়।” সিদ্ধেশ্বর বলিলেন “আমি যা বললাম, ওর কি তা বলবার যে আছে । সে কথা ও বেশ বোঝে, ওকে অত বোকা মনে করে না মা !” হরিহর বলিল “জ্যেঠাইম, দাদার কথাও মানিনে, আমার কথাও কাউকে মানতে বলিনে ; তুমি যা বলবে, আমরা তাই করব ।”