পাতা:সংবাদপত্রে সেকালের কথা প্রথম খণ্ড.djvu/২৬০

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


ミミミ সংবাদ পত্রে সেনকালেৰ কথা ব্রাহ্মণ বৈষ্ণব ও কাঙ্গালিদিগেরে বস্ত্ৰালঙ্কার মিষ্টান্নাদি প্রদান করিয়াছেন এবং নানাবিধ নাচগান হইয়াছিল এইক্ষণে স্কুল প্রকাশ করা গেল বিশেষ জ্ঞাত হইলে বিস্তারিত প্রকাশ করা যাইবেক । ( ২০ জানুয়ারি ১৮২১ । ৯ মাঘ ১২২৭ ) মহারাজ প্রতাপচন্দ্ররায় বাহাদুর।—বৰ্দ্ধমানাধিপতি শ্ৰীশ্ৰীমন্মহারাজকুমার মহারাজ প্রতাপচন্দ্ররায় বাহাদুর ৩ জানুআরি ২১ পৌষ বুধবারে মোকাম কালনাতে গঙ্গাতীরে পাঞ্চভৌতিক শরীর পরিত্যাগ করিয়াছেন । র্তাহার এই সাংঘাতিক রোগ উপস্থিত হইলে বৰ্দ্ধমান হইতে কালনাতে আসিয়াছিলেন এবং সেখানে আরোগ্যের কারণ অনেক স্বস্ত্যয়ন প্রভৃতি করাইয়াছিলেন তাহাতে সদ্ব্যয়ও অনেক হইয়াছে । তাহার কারণ খেদ সৰ্ব্বলোক সাধারণ র্তাহার অনেক সৌজন্ত সৰ্ব্বত্র বিখ্যাত আছে। তাহার পিতা শ্ৰীশ্ৰীযুত মহারাজ তেজশ্চন্দ্ররায় বাহাদুর কলিকাতার জরনলে সমাচার দিয়াছেন যে বৰ্দ্ধমানের রাজা প্রতাপচন্দ্ররায় বাহাদূর আপনার দুৰ্ভগা দুই স্ত্রী ও ভাগ্যহীন পিতা ও গোষ্ঠী কুটুম্বাদি সকলকে শোকসাগরে মগ্ন করিয়া ২৯ উনত্রিশ বৎসর দুই মাস দশ দিনবয়স্ক হইয়া ৩ জানুআরি বুধবারে মোকাম কালনাতে পরলোক প্রাপ্ত হইয়াছেন । ( ৬ ডিসেম্বর ১৮২৩। ২২ অগ্রহায়ণ ১২৩০ ) বৰ্দ্ধমানাধিপের মোকদ্দম। —শ্ৰীযুত মহারাজাধিরাজ তেজশ্চন্দ্র বহাদরের প্রতিকূল হইয়৷ র্তাহার মৃত পুত্র মহারাজাধিরাজ প্রতাপচন্দ্র বহাদরের রাণীর স্বপ্রীমকোর্টে যে নালিস করিয়াছিলেন ১০ নবেম্বর তাহার মোকদ্দমা হইয়া যে রূপ হইয়াছে তাহার স্কুল বিবরণ । মৃত রাজপুত্রের স্ত্রী মহারাণী পেয়ারিকুমারী ও মহারাণী আনন্দকুমারী নিজ শ্বশুর শ্ৰীযুত মহারাজের নামে এই নালিস করিয়াছিলেন যে আমরা মৃত রাজার স্ত্রী আমারদিগের পতি বৰ্দ্ধমান চাকলার দেশাধিপতি ছিলেন ইহাতে র্তাহার বিয়োগে আমরা বর্তমান থাকিতে অধিকার কোন কারণে আমারদিগের শ্বশুর আপন মাতা মহারাণী বিষ্ণুকুমারীর নিকট রাজ্য বিক্রয় করিয়াছিলেন তদবধি মহারাণীই রাজ্যের অধিকারিণী ছিলেন পরে অামারদিগের শ্বশুর অনেক কৌশল করিয়া রাজ্যাধিকারোম্মখ হইয়াছিলেন তাহাতে বিচারে পরাভূত হইয়া তাহাকে বৰ্দ্ধমান ত্যাগ করিয়া চুচুড়ায় দুই বৎসরের কারণ বাস করিতে হইয়াছিল। কিন্তু এই বিষয়ের মোকদম পূৰ্ব্বে জেলা ও কোর্টে হওয়াতে মহারাজের পক্ষে ভাল হইয়াছিল এবং এইক্ষণও সেইরূপ থাকিল কারণ র্তাহার সম্পৰ্কীয় কোন মোকদ্দমা স্থপ্রীমকোর্টে গ্রাহ হইতে পারে না । এই সমাচার চন্দ্রিকণহইতে লওয়া গেল কিন্তু ইহার মধ্যগত কোন২ কথার তাৎপৰ্য্য গ্রহ इड्रेल मां । ( ২১ জানুয়ারি ১৮২৬ । ৯ মাঘ ১২৩২ ) খেদজনক সমাচার ॥—সমাচারদ্বারা প্রচার হইল যে শ্ৰীযুত বৰ্দ্ধমানের মহারাজের পূর্বে