পাতা:সংবাদপত্রে সেকালের কথা প্রথম খণ্ড.djvu/৪০১

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


বিবিধ N9ఆve পায়ের মত তাহার পা সে লোককে পদাঘাত করিয়া মারে আর নবহলওঁীয় এক প্রকার হংস আছে সে নীলবর্ণ ও তাহার ওষ্ঠ রক্তবর্ণ ও সে অতিমনোহর আর নূতন২ অনেক২ প্রকার পক্ষী আছে তাহার নাম সকল জানা নাই । ( ১১ ডিসেম্বর ১৮২৪ । ২৭ আগ্রহায়ণ ১২৩১ ) যাতায়াতে স্বগম।—জানা গেল যে কলিকাতা অবধি কাশীপৰ্য্যস্ত যে নূতন পথ হইয়াছে তাহাতে ডাকের অধ্যক্ষ সাহেব গবর্ণমেণ্টের আজ্ঞানুসারে পথিক সাহেব লোকেরদিগের BBBBB BBB BBB BB BBB BBB BBB BBB BBBS BB BBBB BBBB করিয়াছেন ইহাতে সৰ্ব্বস্থদ্ধ বিশ্রামস্থান বত্ৰিশটা হইয়াছে। প্রত্যেক বাঙ্গালাতে দুই২ কুঠরি করা গিয়াছে যে এক সময়ে দুই সাহেব উপস্থিত হইলে স্থানাভাব না হয়। ঐ সকল স্থানে উপযুক্ত ভৃত্যগণও নিযুক্ত আছে । রাজ্যাধিকারির দানশীলতায় এই ব্যাপার হওয়াতে ইউরোপীয় ও এতদেশীয় লোকের গমনাগমনে অতিশয় উপকার হইয়াছে যেহেতুক তাম্বু কানাত প্রভৃতি দ্রব্য সঙ্গে লইবার কিছু আবস্তকতা নাই। অনুমান করি যে এখন নৌকাযোগে গমনাগমন ক্লেশ ও বিলম্বাসাধ্য জানিয়া অনেকে এই পথাবলম্বন করিবেন । গমনকর্তা পূৰ্ব্বে ডাকের অধ্যক্ষের নিকট সমাচার জানাইলে পর তাহার গমনবার্তা সৰ্ব্বত্র প্রকাশ হইবেক । কলিকাতাহইতে গঙ্গা পার হইয়া শালিখাতে প্রথম মঞ্জিল এবং কাশীর নিকট সিকরোলস্থ ইংলণ্ডীয় শিবিরের পাশ্বে শেষ মঞ্জিল। ইহার বার্ষিক মেরামত পাগলি * দিসেম্বরপৰ্য্যস্ত সাঙ্গ হইবেক । { ২৩ জুলাই ১৮২৫ । ৯ শ্রাবণ ১২৩২ ) কাশী –সংপ্ৰতি বর্ষাকাল উপস্থিত হইয়াছে বটে কিন্তু কলিকাত অবধি কাশীপৰ্য্যস্ত স্থলপথে গমনে কিছু প্রতিবন্ধক হয় নাই তাহার কারণ এই যে কলিকাতা অবধি কাশীপৰ্য্যস্ত গমনপথে যত নদী আছে সে সকলের উপর রজ্জ্বময় সেতু হইয়াছে অতএব গমনের কিছুমাত্র প্রতিবন্ধক হয় নাই এবং অনায়াসে ডাক গমনাগমন করিতেছে। কলিকাতাহইতে কাশীপৰ্য্যস্ত যে পথ তাহাতে সৰ্ব্বস্থদ্ধা পাচ নদীর উপর পাচ সেতু আছে সে পাঁচ সেতু এই২ স্থানে স্থাপিত। প্রথমতে বিষ্ণুপুরের নিকট বিরাই নদীতে ছেয়াশী হাত লম্ব। এক সেতু দ্বিতীয়তো বাঁকুড়ার পশ্চিম দুই দিবসের পথ দঙ্গার নামে নদীতে এক শত দশ হাত লম্বা এক সেতু । তৃতীয়তঃ শহর ঘাটির প্রদেশে হাজারিবাগের পশ্চিম আট ক্রোশ অন্তর ভৈরব নদের উপর আশী হাত এক সেতু। এই সেতু ১৮২৫ শালের মে মাসে স্থাপিত হইয়াছে। চতুর্থত ঐ হাজারিবাগের পশ্চিম পঞ্চাশ ক্রোশ অস্তর ঘুসিতড়া নদীতে এক শত হাত লম্ব এক সেতু সে সেতু ১৮২৪ শালের মে মাসে স্থাপিত হয়। পঞ্চমত কাশীহইতে