পাতা:সংবাদপত্রে সেকালের কথা প্রথম খণ্ড.djvu/৮৯

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


শিক্ষণ (S নিম্নমুখ বৃক্ষ দেখিয়া সদয় হইয়া তদ্ভদাশঙ্কায় বংশদ্বারা তম্ভঙ্গ রহিত করিয়া ঐ বংশ রক্ষা করিয়াছেন । ( ১২ মে ১৮২৭ ৩১ বৈশাখ ১২৩৪ ) পাণ্ডিত্য কৰ্ম্মে নিয়োগ।—সিমুল্য নিবাসি শ্ৰীযুত কাশীনাথ তর্কপঞ্চানন ভট্টাচাৰ্য্য যিনি সংস্কৃত কলেজের স্মাৰ্ত্তাধ্যাপক ছিলেন তিনি ২১ বৈশাখ ৩ মে বৃহস্পতিবারে জেলা চব্বিশ পরগণার পাণ্ডিত্যকৰ্ম্মে নিযুক্ত হইয়াছেন। সং চং ( ৯ জুন ১৮২৭ । ২৮ জ্যৈষ্ঠ ১২৩3 ) পাণ্ডিত্য কৰ্ম্মে নিয়োগ —কলিকাতার সংস্কৃত বিদ্যালয়স্থ ধৰ্ম্মশাস্ত্রাধ্যাপক শ্ৰীযুত কাশীনাথ তর্কপঞ্চানন ভট্টাচাৰ্য্য চতুৰ্বিংশতি পরগনাধিপতি বিচারগুহে পাণ্ডিত্য কৰ্ম্মাভিষিক্ত হওনজন্ত বিদ্যালয়ের পণ্ডিতগণের প্রতিদিন উপনীত বার্তা পুস্তকে অঙ্কিতকরণকালীন কতক দিন ধৰ্ম্ম শাস্ত্ৰাধ্যাপকের স্থান শূন্ত রাখিবার ঘটনা হইয়াছিল সংপ্ৰতি কৰ্ম্মাধ্যক্ষ সাহেবেরা তৎপদে কোনো পণ্ডিতকে নিয়োগজন্য চেষ্টা করাতে স্বদেশীয় বিদেশীয় কএক জন পণ্ডিত তৎপ্রাপণেচ্ছায় পত্র প্রদান করাতে ২১ বৈশাখে বিদ্যামন্দিরে নিয়মমতে পরীক্ষা হইয়াছিল । চতুর্দশ ব্যক্তির পরীক্ষা হয় তন্মধ্যে এতন্নগরের এক জন অধ্যাপক শ্ৰীযুত রামচন্দ্র বিস্তাবাগীশ ভট্টাচাৰ্য্য মহাশয়ের সর্বাপেক্ষ অত্যুত্তম পরীক্ষা হওনজন্ত র্তাহাকেই ঐ কৰ্ম্মে নিযুত করিলেন । এতদ্বিষয়ে কৰ্ম্মাধ্যক্ষ সাহেবদিগের বিবেচনামতে এবং তাহারদের পক্ষপাত ত্যাগ গুণে আমরা পরমাপ্যায়িত হইলাম যেহেতুক পরমহলাদের বিষয় যে কেবল গুণের বিবেচনা হইল এবং তস্কৃষ্টে অন্তই গুণিগণের আশাবৃদ্ধি হইল –সং চং ( ১৪ জুলাই ১৮২৭ । ৩১ আষাঢ় ১২৩৪ ) পরীক্ষক ও পরীক্ষার প্রশংসা।—জেলা মেদিনীপুরের আদালতের পণ্ডিত রাধাচরণ বিদ্যাবাচস্পতির মৃত্যু হইলে সে কৰ্ম্ম প্রার্থক অনেক পণ্ডিত প্রার্থনাপত্ৰ দিয়াছিলেন তাহার মধ্যে ঐ জেলার জজ সাহেব ঐযুত এফ ডিক সাহেব শ্ৰীযুত কাশীনাথ তর্কালঙ্কার ভট্টাচাৰ্য্য ও ঐযুত গুরুপ্রসাদ বিদ্যারত্ব ভট্টাচাৰ্য্য ও শ্ৰীযুত কমলাকাস্ত বিদ্যালঙ্কার ভট্টাচাৰ্য্য ও শ্ৰীযুত রামমোহন ভট্টাচাৰ্য্য এই পাঁচ জনের নামে শ্ৰীযুত গবর্ণর কৌন্সলে রিপোর্ট করিয়াছিলেন গবর্ণর কৌন্সলের সাহেবেরা ঐ পাচ জন পণ্ডিতের পরীক্ষা করিতে কালেজ কমিটিতে শ্ৰীযুত মেকনাটন সাহেব শ্ৰীযুত উইলসন সাহেব শ্ৰীযুত প্রাইস সাহেব শ্ৰীযুত উইসলী সাহেব শ্ৰীযুত কেরী সাহেব শ্ৰীযুত টাট সাহেব এই ছয় সাহেবের নিকট ঐ জজ সাহেবের রিপোর্ট পাঠাইয়াছিলেন। ৯ জুন ২৮ জ্যৈষ্ঠ শনিবার টাট সাহেব ঐ মেকনটিনপ্রভৃতি পাচ সাহেবের সম্মতি ক্রমে শ্ৰীযুত গবৰ্ণমেণ্ট সংস্কৃত পাঠশালায় দশঘন্টার