পাতা:স্বর্ণ-শৃঙ্খল নাটক.pdf/৫৪

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


স্বর্ণ-গৃঙ্খল নাটক 8 × অক্ষসারি অাছে, তাহার গুণ এই যে, যদি বিধাতা আমার সহিত নিজে ক্রীড়া করেন, তথাপি আমি অক্ষ সারি প্রভাবে র্তাহার অব্যর্থ লিপিও অন্যথা করিতে পারি । এক্ষণে এক সভা করিয়া রাজা যুধিষ্ঠিরকে দ্যুতক্রীড়ায় আহ্বান করুন, যদিও তাহার অস্তিরিক মত না থাকে তথtপি লোকলজ্জাভয়ে বিমুখ হইতে পারিবে না । দুৰ্য্যোধন পক্ষে আমি ক্রীড়া করিব,আর আমি প্রতিজ্ঞ করিয়া বলিতেছি যে, মুহুৰ্ত্ত মধ্যে পাণ্ডবদের রাজ্য, ধন, জন, সকল জিনিয়া লইয়। পাণ্ডবকে দুৰ্য্যোধনের অধীন করিয়া দিব । দ্রোণ, কৃপ, বিদুর সকলে একবাক্য হইয়া—নারায়ণ নারায়ণ ! কি পাপ ! কি অধৰ্ম্ম ! ধৃতরাষ্ট্র । হা, পরামর্শ ভাল বটে, কিন্তু কিছু স্যায়বিরুদ্ধ বোধ দ্ৰোণ । হয় না ? তার আর জিজ্ঞান্ত কি ? মহারাজ, শস্ত্রোপঞ্জীবী হইলেও অামি ব্রাহ্মণ । রাজাও নই, রাজপুত্রও নই, অতএব রাজনীতিতে বিশেষ অভিজ্ঞ নই ; কিন্তু আমার সামান্ত বুদ্ধিতে এ বিষয়ে যাহা বোধ হয়, তাহ বলি – মহারাজ, আমি অনেক দেখিয়াছি ও শুনিয়াছি, ইতিহাস পুরাণাদিও অনেক পাঠ করিয়াছি, কিন্তু এরূপ কদৰ্য্য ব্যাপার কখন দেখিও নাই, শুনিও নাই। কলি নিজে এ সভায় মূৰ্ত্তিমান থাকিলে পরাজয় স্বীকার করিয়া এরূপ কুপ্রবৃত্তি দাতার নিকট শিষ্যত্ব গ্রহণ করিতেন । মহারাজ ইহাতে আপনার কোনমতেই মঙ্গল নাই। অধৰ্ম্মে ইহকাল পরকাল উভয় নষ্ট হয়। বিবেচনা করুন দেখি, কি ভয়ানক ! যে ব্যক্তি মহাশয়ের