পাতা:হলুদ পোড়া - মানিক বন্দ্যোপাধ্যায়.pdf/৩৪

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে চলুন অনুসন্ধানে চলুন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।

O 9 হলুদ পোড়া তিনি মানুষটা মন্দ নন, মন তার ভালো ? মনোরমা একটা বিস্ময়কর । SBDD BBDD BDBD BBD BD DDB DBD LtttLE DD LD DD LD BSDt BBS BD BLSS SYYYB DDL LLLLLL আসছেন তিনি হিংসুটে, স্বার্থপর, ঝগড়াটে এবং আরও অনেক কিছু ! শুনতে শুনতে ধারণা জন্মে গেছে যে তিনি সত্যই তাই। হিংসা, স্বার্থপরতা আর ঝগড়াঝাটি নিয়েই দিনও তার কাটছে বৈকি। রমেনের কথা শুনে হঠাৎ মনে হল, ওসব কিছু নয়, অনেক কাল আগে অল্প । বয়সে যেমন ছিলেন এখনো তেমনি আছেন,-সাদাসিদে ভালোমানুষ। *fosfa VegaM i কাছে বসিয়ে আদর করে। মনোরম রমেনকে খাওয়ালেন। অনুপমার পৃপিত্তি জলিয়ে বার বার বলতে ১ লাগলেন, খাসা ছেলে দিদি । ছেলেমেয়েদের একটিবার ধমক দিলেন না, কারো দিকে কড়া চোখে তাকালেন DS DBDBDBD BDYSDBB LBBBD BDB DBDE DDDD DBBDLL মনে হতে লাগল, খোলস ছেড়ে মনোরম যেন নতুন মানুষ হয়ে গেছেন। খাওয়ার পর তিনিই রমেনকে বললেন, 'এইটুকু ঘরে কি তিনজনের যায়গা হয় ? তুমি ওপরে থাকবে রমেন ? তখন রমেন বলল, “ভালো-পিসীমা, আমি এ ঘরে থাকি, সুকোমলকে Mesofs fa fa ” মনোরমাহেসে বললেন, “এ ঘরে থাকতে চাও তুমি ? বেশ বাবা, তাই হবে। সুকোমল ধীরেনের ঘরে যাক, তুমি এখানেই থাকে।” • এ ব্যবস্থায় খুলী হওয়ার বদলে সুকোমল কিন্তু ভয়ানক চটে গেল। "তার আত্মসন্মানে ঘা লাগল। কিনা। এতদিন বাড়ীর লোকের উপেক্ষায় “তার অতিমানের সীমা ছিল না, আজ তাদের পক্ষপাতিত্বে লৈ, হিংসায় । “পুড়তে লাগল। তাকে কেউ গ্ৰাহও করে না, রমেনের মুখের কথায়