পাতা:Bharatkosh 1st Vol.pdf/১০০

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


________________

অতুলকৃষ্ণ মিত্র। অতীশদীপংকর জ্ঞান তিব্বতী পরম্পরানুসারে অতীশ ( ১১শ শতাব্দী) বিক্রমণীপুররাজ কল্যাণশ্রীর পুত্র। বিক্রমণীপুরকে সাধারণতঃ পূর্ববঙ্গের বিক্রমপুর রাজ্য বলিয়া মনে করা হয়। অতীশ প্রথমে মাতার নিকট এবং পরে ভারতের বিভিন্ন বিদ্যাকেন্দ্রে, সুবর্ণদ্বীপে এবং সিংহলে | অধ্যয়ন সমাপনান্তে বিক্রমশীলামহাবিহারে একান্নজন আচার্য এবং একশত আটটি মন্দিরের অধ্যক্ষ নিযুক্ত হন। তিব্বতের রাজা জ্ঞানপ্রভের ঐকান্তিক আগ্রহে বৌদ্ধধর্মপ্রচারার্থ তিনি ১০ ৪০ খ্রীষ্টাব্দে তিব্বত যাত্রা করেন। তঁাহার চেষ্টায় ভােট দেশে আদিম ধর্ম পরিত্যক্ত এবং বৌদ্ধধর্মাচার পরিগৃহীত হয়। বৌদ্ধ ক-দম্ (পরবর্তী নাম গে-লুক ) সম্প্রদায় অতীশই প্রতিষ্ঠা করেন। তিনি অনেক সংস্কৃত গ্রন্থ তােট ভাষায় অনুবাদ করেন এবং স্বয়ং রত্নকরণ্ডোঘাট’, ‘বােধিপাঠপ্রদীপ’, ‘বােধিপাঠপ্রদীপপঞ্জিকা প্রভৃতি গ্রন্থ এবং সম্রাট নয়পালের উদ্দেশ্যে বিমলতুলেখ নামক পত্র রচনা করেন। তাহার মূল সংস্কৃত রচনাগুলি কালক্রমে বিলুপ্ত হইয়াছে। তিব্বতী ভাষায় উহাদের অনুবাদ পাওয়া যায়। অতীশ তিব্বতে বুদ্ধের অবতাররূপে পূজিত হন। লাসার নিকটে তাঁহার সমাধিস্থান তিব্বতের অতি পবিত্র তীর্থক্ষেত্র। ভারতে অবস্থানকালে অতীশ সম্রাট নয়পাল এবং পশ্চিমদেশীয় কর্ণ ( কনােজ? ) -রাজের বিবাদে মধ্যস্থতা করিয়া দেশে শান্তিস্থাপন করিয়াছিলেন। অনন্তলাল ঠাকুর অতুলকৃষ্ণ গোস্বামী কলিকাতার শিমুলিয়ানিবাসী সুপ্রসিদ্ধ বৈষ্ণব পণ্ডিত। নিত্যানন্দপ্রভুর বংশে ইহার জন্ম। ১৮৯৮ খ্ৰীষ্টাব্দে বলাইচাঁদ গােম্বামীর সহযােগিতায় ইনি শ্রীরূপের লঘু-ভাগবতামৃতের একটি সটীক সানুবাদ সংস্করণ প্রকাশ করেন। তাহার পর শ্রীচৈতন্যভাগবতের বহু পুথি মিলাইয়া একটি টীকা-টিপ্পনীযুক্ত প্রামাণিক সংস্করণও প্রকাশ করেন। বৈষ্ণব-গ্রন্থ বিদ্বজ্জনের গবেষণার উপযােগী করিয়া সম্পাদনা করিবার কার্যে ইনিই পথপ্রদর্শক। রাসপঞ্চাধ্যায়ের পদ্যানুবাদ করিয়া ইনি কবিখ্যাতি লাভ করিয়াছিলেন। ইহার রচিত ঈশ্বর পুরীর জীবনী ও ‘ভক্তের জয়’ গ্রন্থ বৈষ্ণবসমাজে যথেষ্ট আদর পাইয়াছিল। . বিমানবিহারী মজুমদার অতুলকৃষ্ণ মিত্র (১৮৫৭-১৯১২ খ্রী) অতুলকৃষ্ণ কোন্নগরের বিখ্যাত মিত্রবংশীয় রাজকৃষ্ণ মিত্রের পুত্র।