পাতা:অবলা প্রবলা.djvu/৩৫

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


২২ অবল প্রবলা । পুরব দেশ কহ তো তুষ্টার পেশ যানে দেহ बश्ड् क्वकद्र ॥ সাধু জ্ঞানে পরে তায়, ছাড়ি দিল পাহারায়, হৃষ্টমনে হৈতে আগুসার ৷ ভাট বলে রক্ষা পাই,হেন কভু হেরি নাই,পড়ে আসি দ্বিতীয় দুয়ার । দেথে তায় পুনরায়, কালান্ত কালের প্রায়, ফেরে বহু প্রহরীয়া গণ । হান হান করে মুথে তরবাল ধরে রুথে, হেরি দেহে না রহে জী বন । গথিক গাওরী ঠিক, সুরঙ্গী দরঙ্গী শাক, যম সম থেলে লম্ম দিয়া । উড়াপাকে ধায় ঢালী, কেহু নাচে দিয়! তালী, প্ৰমত্ত মাদক দ্রব্য পিয়া । কেহু দিয়া গোপে পাক, ফিরিতেছে পাকে পাক, গুণকে হাকে নাহি থাকে প্রাণ। গোলেলার সমূহ, কষ্ট বাজে ঝন্‌২ লক্ষে দম্ভে কম্পে স্থানে স্থান। মারে ঘোটা ধরি ঢাল, তালে তালে ঠুকে তাল, সাক্ষ সামাল কেহু কয় ! ডলে গুলি দিয়া মাটী, ফেহু বা খেলায় লাটী, আকার হেরিলে লাগে ऊझ । दुइ भाइब्र भालमाप्ने, भुप्थ दत्त्व कोप्ने कोप्ने, বিকট মূরতি সবাকার । ধর ধর মার মার, শব্দ করে অনিবার, কে করে শূর্ণ বক কার । ছকে হাঁকে মারে হাক, কেহ কোথা করে জাক, কেহ কারে শঙ্ক। নাহি করে । কেহ ব। ধরিয়া কায়,