পাতা:অরূপরতন - রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর.pdf/৪১

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


অরপরতন সুদৰ্শন ! হয়েছে হয়েছে, আর না ! তোমাদের এই গান শুনে চোখে জল ভ’রে আসছে –আমার মনে হচ্চে যা পাবার জিনিষ তাকে হাতে পাবার জো নেই—তাকে হাতে পাবার দরকার নেই । [ প্রণাম করিয়া বালকগণের প্রস্থান து-துபது-துங்_ர் .جی কুঞ্জদ্বার ( ঠাকুরদাদ ও দেশ পথিকদের প্রবেশ ) ঠাকুরদাদ। কী ভাই, হোলো তোমাদের ? কৌণ্ডিল্য । খুব হোলো ঠাকুর্দা । এই দেখে না একেবারে লালে লাল ক’রে দিয়েছে । কেউ বাকি নেই । ঠাকুরদাদা । বলিস কী ? রাজগুলোকে সুদ্ধ রাঙিয়েছে না কি ? জনাৰ্দ্দন ওরে বাসরে । কাছে ঘেষে কে ! তা’র সব বেড়ার মধ্যে খাড়া হয়ে রইল । ঠাকুরদাদা । হায় হায় বড়ে ফাকিতে পড়েছে। একটুও রং ধরাতে পারলিনে ? জোর ক’রে ঢুকে পড়তে হয় । কুম্ভ । ও দাদা, তাদের রাঙা, সে আরেক রঙের । তাদের চক্ষু রাঙা, তাদের পাইকগুলোর পাগড়ি রাঙা, তার উপরে খোলা তলোয়ারের যে রকম ভঙ্গী দেখলুম একটু কাছে ঘেঁষলেই একেবারে চরম রাঙা রাঙিয়ে দিত। ঠাকুরদাদা। বেশ করেছিস ঘোষিস নি । পৃথিবীতে ওদের নির্বাসন । দও—ওদের তফাতে রেখে চলতেই হবে । v©ፃ