পাতা:ঈশ্বরচন্দ্র গুপ্তের জীবনচরিত ও কবিত্ব.djvu/৩৫৮

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


২৬৬ কবিতাসংগ্রহ। খর বাড়ী পরিজন, তুলে ফেলে মেওয়া বন, মাটী শুদ্ধ পূরিয়াছ পেটে । লাহোরে সমরস্থলে, শাদা কালো দুই দলে, সে দিনেতে করিয়া নিধন । টুপি কুৰ্ত্তি গোলা তোপ, বড় বড় দাড়ি গোপ, সমুদয় করেছ ভক্ষণ ॥ বড় বড় দৈত্য দালা, আর আর জন্তু নানা, কত খেলে সংখ্যা নাহি তার । কেবল খাবার ধুম, ক্ষণমাত্র নাহি ঘুম, মৃত্যু তোর পায়ে নমস্কার ॥ শীত গ্রীষ্ম বর্ষ। আর, ষড়ঋতু পরিবার, সমুচয় পেটে দেয় পূরে ॥ আলো আর অন্ধকার, স্বাধীনতা আছে কার, সবে বদ্ধ কাল তব পুরে। ছাই ভষ্ম যাহা পাও, সকলি শুষিয় খাও, দেখে শুনে হারা হই দিশে । দিবানিশি চলে মুখ, শ্রান্তি নাই একটুক, এত খেয়ে পাক পায় কিসে ? কন্তাপুত্র বন্ধু ভ্রাতা, জ্ঞাতি আদি পিতামাতা, শোকাকুল প্রতি জনে জনে । ত্রিসংসার ছারখার, অনিবার বারিধার, বিধবার নীরদ নয়নে ॥