পাতা:উপকথা.pdf/১৮

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


ইন্দির । à যত দিন ন গাত্রেব বেদন মারাম হুইল, ততদিন মামাকে কাজে কাজেক্ট ত্রহ্মিণেব গুহে থাকিতে হইল । ব্রাহ্মণ ও তাঙ্গার গৃহিণী আমাকে যত্ন কবিঘা বাখিলেন। কিন্তু মহেশপুর মাইবাৰ কেন উপায় দেখিলাম না । কোন স্ত্রীলোকেই পথ চিনিত না, অথবা ঘাটতে স্বীকাব কবিল না । পুরুষে অনেকেই স্বীকৃত হইল--কিন্তু তাহাদিগেব সঙ্গে একাকিনী যাইতে ভগ করিতে লাগিল । ত্রাহ্মণ ও নিষেধ করিলেন । বুলিলেন, “উহাদিগের চরিত্র ভাল নহে, উহাদিগের সঙ্গে যাইও না । উহাদের কি মতলব বলা যায় না । আমি ভদ্রসন্তান হইয়। তোমাব ন্যায় সুন্দরীকে পুরুষের সঙ্গে কোথাও পাঠাইতে পারি না।” তরাং আমি নিরস্ত হইলাম । - একদিন শুনিলাম যে ঐ গ্রামের কৃষ্ণদাস বহু নামক একজন ভদ্রলোক সপরিবারে কলিকাতায় যাইবেন । শুনিয়া আমি ইহা উত্তম সুযোগ বিবেচনা করিলাম। কলিকাত{ ইষ্টতে আমার পিত্ৰালয় এবং শ্বশুরালয় অনেক দূর বটে, কিন্তু সেখানে আমার জ্ঞাতি খুল্লতাত বিষয়কৰ্ম্মোপলক্ষে বাস করিতেন i আমি ভাবলাম, যে কলিকাতায় গেলে অবশ্য খুল্লতাতের সন্ধান পাইব । তিনি অবশ্য আমাকে পিত্রালয়ে পাঠাইয় দিবেন। না হয়, আমার পিতাকে সম্বাদ দিবেন । - অ।মি এই কথ। ব্রাহ্মণকে জানাইলাম। ব্রাহ্মণ বলিলেন, “এ উত্তম বিবেচনা করিয়াছ । কৃষ্ণদাস বাবুর সঙ্গে আমার জন শুনা আছে । আমি তোমাকে সঙ্গে করিয়া লইয়া বলিয়া দিয়া অভ্যাসিব । তিনি প্রাচীন, আর বড় ভাল মানুষ ।” । ব্রাহ্মণ মামাকে কৃষ্ণদাস বাবুর কাছে লইয়া ব্রাহ্মণ কছিলেন, “এটি ভদ্রলোকের কন্যা । বিপাকে পড়িয়া পথ হাৱাইয়া এ দেশে আসিয়া পড়িয়াছেন । * আপনি যদি