পাতা:গোচারণের মাঠ.pdf/২৬

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটিকে বৈধকরণ করা হয়েছে। পাতাটিতে কোনো প্রকার ভুল পেলে তা ঠিক করুন বা জানান।
২০
গোচারণের মাঠ।

গোচারণ মঠে গাভী আসিছে ফিরিয়া,
যতেক কৃষক যুবা চলে বাড়ি নিয়া;
আগে পাছে দুই ধারে চলিছে রাখাল;
সারি দিয়া থাকে থাকে, আসে গাভী পাল।
 এস ভাই, চল যাই, ওই বটতলে,
দূরেতে থাকিয়া শোভা দেখিব সকলে।
সমুখেতে শৈল মালা—আকাশের গায়,
আবার ঢাকিয়া বুঝি ফেলিছে ধূঁয়ায়;
সরোবর ঢাকি আছে, কলমী, কমল;
সুধীর সমীর করে বকুলে বিচল;
সারা কাল খাড়া আছে পুরাণ দেউল,
জীবনের সাথী তার,—হেলান তেঁতুল;
বেউড় বাঁশের ঝাড় করে কট্‌ কট্‌,
জট গাড়ি গট হয়ে বসি আছে বট;
ও দিকে গহন বন, নীরব, বিশাল;
শালতরু যোগ সাধে, পাহরায় তাল।
তেমনি শামল মাঠ, মাঝে গাভীদল,
তেমনি সবুজে ঢালা, করে ঢল ঢল;
সেই ত অসীম নীল মাথার উপর,
বহে বায়ু, চলে চীল, ঝরে রবিকর;