পাতা:জ্ঞাতি শত্রু - প্রিয়নাথ মুখোপাধ্যায়.pdf/১০

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে চলুন অনুসন্ধানে চলুন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা হয়েছে, কিন্তু বৈধকরণ করা হয়নি।

১০

দারােগার দপ্তর, ২০২ সংখ্যা।


 লজ্জিত হইয়া অতি ধীরে ধীরে শক্তিসাধন বলিলেন, “আজ্ঞে সেখানি ভাড়াটিয়া বাড়ী।”

 আমি আশ্চর্য্যান্বিত হইলাম। পরে জিজ্ঞাসা করিলাম, কিছুক্ষণ পূর্ব্বে বলিয়াছিলেন যে, আপনার জ্যেষ্ঠের কয়েকখানি ভাড়াটিয়া বাড়ী আছে, তাঁহারই আয় হইতে তিনি পরিবারবর্গের ভরণপোষণ করিয়া থাকেন। যদি তাহাই হয়, তবে আপনি কেন স্বতন্ত্র ভাড়টিয়া বাড়ীতে থাকেন? বাড়ীর ভাড়া কত?

 শ। আজ্ঞে পনের টাকা মাত্র।

 আ। আপন কি কার্য্য করেন?

 শক্তিসাধন লজ্জায় কোন উত্তর করিলেন না, মস্তক অবনত করিয়া রহিলেন। আমি পুনরায় ঐ প্রশ্ন করিলাম, তখন তিনি অতি কষ্টে উত্তর করিলেন, “আজ্ঞে কোন কার্য্য করি না। আমি নিষ্কর্মা—কেবল দাদার গলগ্রহ ছিলাম।”

 আ। বাড়ীভাড়াও তিনিই দিতেন?

 শ। আজ্ঞে হাঁ—তিনি প্রতি-মাসে আমার ব্যয়ের জন্য কিছু করিয়া অর্থ দিতেন।

 আমি কিছুক্ষণ কোন কথা কহিলাম না। পরে জিজ্ঞাসা করিলাম, “আপনি আপন জ্যেষ্ঠের সঙ্গে বাড়ীতে থাকেন না কেন? যখন তিনি আপনার সকল ভারবহন করিতেছেন, তখন তিনি আপনাকে এক বাড়ীতে রাখেন না কেন?

 শক্তিসাধনের মুখ সহসা পাংশুবর্ণ ধারণ করিল। তিনি সহসা কোন উত্তর করিলেন না। মস্তক অবনত করিয়া একমনে কি ভাবিতে লাগিলেন।

 এমন সময় কোচম্যানের চীৎকারধ্বনি আমাদের কর্ণগোচর