পাতা:দুই বোন - রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর.pdf/১১

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা হয়েছে, কিন্তু বৈধকরণ করা হয়নি।
দুই বোন

অল্প একটু যেন সদির অাভাস দেখা দিয়েছে শৰ্মিলার এই কল্পনা অনুসারে তাকে কুইনিন খেতে হোলো দশ গ্ৰেন, তা ছাড়া তুলসীপাতার রস দিয়ে চা। আপত্তি করবার মুখ ছিল না। কারণ ইতিপূৰ্বে অনুরুপ অবস্থায় আপত্তি করেছিল, কুইনিন খায়নি, জরও হয়েছিল, এই বৃত্তান্তটি শশাঙ্কের ইতিহাসে অপরিমোচনীয় অক্ষরে লিপিবদ্ধ হয়ে গেছে।

 ঘরে অারোগ্য ও অাবামের জন্যে শৰ্মিলার এই যেমন সস্নেহ ব্যগ্ৰতা বাইরে সন্মান রক্ষার জন্যে তার সতৰ্কতা তেমনি সতেজ। একটা দৃষ্টান্ত মনে পড়ছে।

 একবার বেড়াতে গিয়েছিল নৈনিতালে। অাগে থাকতে সমস্ত পথ কামরা ছিল ৱিজাৰ্ভ-করা॥ জংশনে এসে গাড়ি বদলিয়ে অাহারের সন্ধানে গেছে। ফিরে এসে দেখে উদিপরা দুৰ্জনমূতি ওদের বেদখল করবার উদযোগে প্ৰবৃত্ত। স্টেশনমাস্টার এসে এক বিশ্ববিশ্ৰত জেনেরালের নাম ক’রে বললে, কামরাটা তারই, ভুলে অন্য নাম খাটানো হয়েছে। শশাঙ্ক চক্ষু বিস্কারিত করে সসম্ভমে অন্যত্ৰ যাবার উপক্ৰম করছে, হেনকালে শৰ্মিলা গাড়িতে উঠে দরজা আগলিয়ে বললে, “দেখতে