পাতা:বঙ্গ-সাহিত্য-পরিচয় (দ্বিতীয় খণ্ড).djvu/২০৮

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


> >や、 বঙ্গ-সাহিত্য-পরিচয় । উদর-পোষণ হয় লোকে ভিক্ষা দিলে। তবে কেনে থাকি মুঞি দস্থ্য-সহ মিলে । বড় ঘৃণা হইয়াছে কুকৰ্ম্মের প্রতি । আর না রহিব মুঞি দস্থ্য-দলপতি ॥ . এত বলি নারোজী দলের প্রতি চায়। অস্ত্র-শস্ত্র সেই দণ্ডে টানিয়া ফেলায়। প্রভূ-কহে নারোজী আমার কথা শুন । আর কত কহিব তোমারে পুনঃ পুনঃ ॥ কৌপীন পরিয়া কর লজ্জা-নিবারণ। মাগিয়া যাচিয়া কর উদর-পোষণ ॥ কাহার লাগিয়া অর্থ করহ সঞ্চয়। পিতা মাত ভাই বন্ধু কেহ কণর নয় ॥ এক মুষ্টি অন্নে যদি দেহ-রক্ষা হয়। তবে কেন পাপে কর অর্থের সঞ্চয় ॥ অঞ্জলি-পাত্ৰেতে পিয় ঝরণার জল । বহু পাত্র সংগ্ৰহ করিয়া কিবা ফল। কুবের-সমান যত আছে ধনিগণ । একদিন প্রেত-পুরে করিবে গমন । যে পথে দরিদ্র যাবে এ দেহ ত্যজিয়া । অবশু সম্রাট্র যাবে সেই পথ দিয়া ॥ এই উপদেশ শুনি নারোজী ব্রাহ্মণ । আমাদের সঙ্গে চাহে করিতে গমন ॥ নারোজী কহিলা সব তীর্থ দেখাইব। তীর্থে তীর্থে আপনার পিছনে যাইব ॥ এত দিন চক্ষু অন্ধ ছিল ভ্রান্তি-ধূমে। আজি হৈতে অস্ত্ৰ-শস্ত্র ফেলিলাম ভূমে । এই হস্তে কত নর-হত্যা করিয়াছি। এই মুখে কত জনে কটু বলিয়াছি। আর না রহিব মুঞি ডাকাতের পতি। কি পথ দেখালে মোরে অগতির গতি ॥ জঙ্গলের মধ্যে থাকি সদা লুকাইয়া। পাপে দেহ জরজর না দেখি ভাবিয়া ॥