পাতা:বাঙ্গালা ভাষার অভিধান (প্রথম সংস্করণ).djvu/১৭৩

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


उiघ्र অণচড়া-অ’চিড়ি-পরম্পর নখাদিদ্বার अशोङकङ्ग% । আঁচড়াকুড় (, ডু) (সং–আবর্জনাকুও ब बाळशन-कू७ ] दि, शृंरश्ब बांबव्छनां च ওচলা কেলিবার স্থান ; আঁস্তাকুড় । আঁচড়াপড় (চ) [ আঁচড়া—পড় ] বিণ. যে অঁাকড়িয়া পড়িয়া থাকে ; নেয়ে আঁকড়া ; कैईब्रां । আচমন (গ্ৰীচমন) সং–আচমন। উচ্চারণ বিকারে আঁ] বি, ধৰ্ম্মকর্ণের জস্ত মন্ত্রপাঠপূর্বক বিধিমত জল গ্রহণ ৷ ২ ৷ ভোজনান্তে বিধিমত মুখ প্রক্ষালন । অর্ণচমনীয়— বিণ, যে দ্রব্য ভক্ষণ করিলে আঁচমন করিতে হয়। যথা—সিদ্ধ তণ্ডুলাদি। প্ৰ—“আঁচমন মুখশুদ্ধি সারি স্বতলনে। সস্তোৰে বসিলা শিৰ শাৰ্দ্দল অজিনে ৷” —শিবায়ন । আঁচর, আঁচোর (আঁচোর) সিং—অঞ্চল। হি—আঁচরা । ব্ৰজ, প্রা. বাং. ল=র ] বি. বস্ত্রের প্রান্তভাগ ; আঁচল । প্র—“এস এস বঁধু এস আৰ আঁচরে বস ” –চণ্ডীদাস । “অচিরে বাপরি আনন চন্দ” –গোবিন্দদাস । “কুহুম তুলিয়া লহ ভরিয়া আঁচোর” --আশোকগুচ্ছ । আঁচল (আঁচোল্) (সং—অঞ্চল। হি—আঁচলা। বি, বস্ত্রের প্রান্তভাগ । প্র—“ক্রোধে রাণী ধায় রড়ে ; আঁচল ধরায় পড়ে।” –ভারতচন্দ্র । ”আঁচলে চাবির থোলো ঝোলে গলা বেড়ে ।” —হেমবণ্যো । আঁচল ধরিয়া বেড়ান—কোন স্ত্রীলোকের অধীন হইরা চলা : স্ত্রীলোকের দ্বার পরিচালিত হওয়া বা তাহার সঙ্গে সঙ্গে ফের । আঁচলা (জাল) সং—অঞ্চল। হি-মালা, আঁচর] বি, অঞ্চল ; কাপড়ের (দশি প্রধানতঃ প্রতিমাদির বস্ত্রের প্রান্তভাগকেই বুঝায়)। বস্ত্রপ্রান্তের যে অংশে ফুল কাটা বা জরি প্রভৃতির কাজ করা থাকে । ठोंtछ [ ऑफ़ (ज: ) +य (डि-क्ङिसि) । উ-পু-আঁচি। ম, পু-আঁচ ; আঁচুন : আঁচু। প্র-পু-আঁচে ; আঁচে । অসক্রি – আঁচিতে, আঁচিয়া, আঁচি ( পদে ) এ চে ( গ্রা ) । ণিজন্ত—আচান ( নো ) ] ক্রি, ঠিক করিয়া বর্ণনা করা ; অনুমান করা । আঁচা-আঁচি [আঁচ দ্রঃ]বি, পরস্পরের মনোগত ভাব অনুমান দ্বারা নির্ণর চেষ্টা বা সন্ধান । প্র—“কি করি ছুজনে মনে করে আঁচা-আঁচি" --ভারতচন্দ্র। ২ । পরম্পর ছিদ্রানুসন্ধান । ৩ । পরম্পর ইঙ্গিত। আঁচনি সিং—আচমন হইতে বি. ভোজনান্তে হস্তমুখ প্রক্ষালন। صbلات ولا আঁচনি (নো ) { অকৰ্ম্মক ক্রিয় , উ-পু— আঁচাই। ম-পু-আঁচাও ; আঁচনি ; আঁচ । প্রপু-আঁচার ; আঁচান। অস ক্রি – আঁচাইতে ; আঁচাইর ; আঁচিয়ে ( গ্রা ) ] ক্রি, আচমন করা : আহারান্তে शंउ মুখাদি ধোয় । প্র—“পাৰ্ব্বতীর পাক প্রশংসিলা সৰ ছেল্যা, মিছামিছ খেয়ে মিছা মিছা আঁচাইল ॥" -*िबांग्नन । ২ । আঁচ দেওয়া ; তাতান। না আঁচালে বিশ্বাস নাই—আহারান্তে আচাইতে হয় সুতরাং তখনই আহার সম্বন্ধে নিঃসন্দেহ হওয়৷ যায় ; ইহা হইতে কোন কাৰ্য্য সিদ্ধ ন হইলে তাহা সম্পাদিত হইবে কিনা তাহা বলা যায় 국 আঁচি (আঁচি) (প্রাদে কথ্য) মালা ৷ ২ ৷ জননাশৌচ ৷ আচিল (ল্) বি, ব্ৰশবিশেষ ; উপমাংস ; ব্যাধিবিশেষ । “জননী কহিল মোর জনক কনক-গেীর, বামনাসা উপরে আচিল ॥” —কবিকঙ্কণ । অণচীল বি, নারিকেল আঁচল ( আচীর প্রঃ। পাটীল—আচার-প্রাচীর দ্রঃ । আঁচোট (ট) [আ–চোটী বিশ, পতিত। अॅउिन (न्) [म९-ञश्चन । श्-िवॆाजन् : আজি । বি, কজল ; কাজল ; নেত্রলেপ । আঁজনাই [সং—অঞ্জন । অঞ্জনিয়া-পৃষ্ঠে অঞ্জনবর্ণের ডোরা আছে বলিয় ] বি. জেঠী ; আঞ্জুনে । ২ । নেত্ররোগবিশেষ । অাজল, অজিলা (ঙ্গাজল, আজল) সিং -यgलि ] श्-िअँछलौ, अँछणां, अॅझल ] বি, অঞ্জলি ; করপুট । ২। অঞ্জলি পরিমাণ ; ৩২তোলা পরিমাণ । অণজল-পাজল ( ) { তুল—উজস্ব ও জোল পাজল। সং–পঞ্জর-পাঁজর ; मझब्र भक अंछित्र । श्-िअँछवृॉजन] ति, অস্থিপঞ্জরের বন্ধন শিথিল হওয়া । অ’াজি [ অঞ্জন দ্রঃ। চোখের কোলে অপ্লনের রেখা শলাকা দ্বারা টানার ভাব হইতে ] বি, টানা রেখা । ২ । বস্ত্রাদির প্রান্তস্থ সুত্ররেখা ; বস্ত্র রুমাল প্রভৃতির পাড়ের অংশ বিশেষ । ७ । कज्ञां ।। 8 । ख*ि यठिब्र १७ ; অীজি দেওয়া, আজি ধরান—চুপ, স্বরকি, সিমেন্ট, বালি প্রভৃতি দ্বারা ইট পাথর প্রভৃতির জোড়ের মুখ বন্ধ করা ; খড়া মারা । অ'জি পুজি, অজুি পাজু খেলি জঃ । অন্ধকারে আগুনের রেখা টানার ভাৰ । প্রাদে]বি, ক্রীড়া বিশেষ। দীপালীর বা কালী ख्रीषॆ পূজার রাত্রে ছেলেরা পাকাটা জ্বালাইয় খুরাইতে খুৱাইতে রাজপথে দৌড়াদৌড়ি করিয়া খেলা করে তাহার নাম আঁজি পুজি বা আঁজু পাজু। আঁটি (ই) [ ওড়ি—আন্ট আ–টান; ইং— tight; aro-dight. §föl of J fo, টান । প্ৰ—ৰন্ধন বা গেরোতে জমাট দেওয়া : আঁট দিয়ে গেরো বাধা ৷ ২ ৷ হাত টান ; ( আত্মসাৎ করণের ভাৰ ) । আঁটি সাটি দ্রঃ । ७ । बैभूनि ; पूखिद्र वकन ।। 4-ठांशंब्र কথা গুলিতে বেশ খুঁটি আছে। "সটি করে পাচ কথা কটু যদি কয়।” —শিবায়ন । ৪ । যত্ব : মনোযোগ , অশৈথিল্য । প্র— কার্য্যে তাহার খুব আঁটি। ছেলেটির লেখা পড়ায় একেবারেই আঁট নাই। ও । বিণ, টান-টান ; কষা ; মাপে ছোট : খাট। প্র— জামাটা তাঁহার গায়ে আঁটি হয়েছে। বেশ আঁট করে বঁাধ । (এই অর্থে "জাটোও উচ্চারিত হয়) । আঁট সাট (আঁটু শাটু ) দৃঢ়তা : শক্তাশক্তি ; কষাকৰি । ২। প্রযত্ন ; মনোযোগ। অাটিসটি–হাত টান ; আপনার গও বুঝিয়া লইবার অতি যত্ন ব| কড়াকড়ি। প্র—“আপনার বেলা আঁটিসাট পরের বেলা দাত কপাট ।” –প্রবচন । অtটকুড় ( অটুকুড়, ) [ আঁট ( এটা, এটো—সং—উচ্ছিষ্ট ) কুড়=কুল ( ল=ড় ) =স্থান, “কুলং * * * স্থানং ।” –হেমচত্র (অভিধান-চিন্তামণিঃ) । তল বা স্থল ; তুল— ছাচ্‌কুড়=ছাতল ) অর্থাৎ যথায় এটাে ভাত এটাে পাত প্রভৃতি পতিত হয় । তুল— এ টো পড়া ; এ টোকুড় । আঁস্তাকুড় দ্রঃ । ] বি, আঁস্তাকুড় ; উচ্ছিষ্ট অন্নাদি ফেলিয়৷ দিবার স্থান ; আদাড়। আঁটকুড়: পাটকুড়—আঁস্তাকুড় এবং পাশকুড় ; এটো ফেলিবার স্থান এবং ছাই ফেলিবার স্থান । তুল—আঁদাড় পাদাড় । আঁটকুড় (আঁটুকুড়ো) অণটকুড়া ( ) [আট (সং—আত্ত—গৃহীত, কালের দ্বারা शृशैउ) कूप्ल (कूण-वरण "कूल९ cभीप्ज সজাতীয়গণেশ্বপি ।" -cभनिौ )+यां ( কৰ্ত্ত এই অর্ধে)—যাহার কুল কালের স্বার शृशैठ व अछिडूठ व इउ-षांश श्रेष्ठ रश्न লোপ পায়, যে বংশলোপকারী। ভুল-ওড়ি, আন্ট কুড় ] বিণ, জনপতা : নিঃসন্তান ; নিৰ্ব্বংশ। প্ৰ—“ওরে বুড়া আঁটকুড়া নারদ - অল্লেয়ে” —ভারতচত্ৰ । "বন্ধ্যা যার রমণী, আপনি জাটকুড়া।” -एनब्रांग । जैौ, औiछेकूर्छि, क्लो-८ष शैब्र गड़ान इब्र