পাতা:বিশ্বকোষ একাদশ খণ্ড.djvu/৬২০

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


পুরাণ ( দেবীভাগবত ) TTT =T-T-T - নারদের পুত্রস্বত্যুশ্রবণে বিলাপ ও নারায়ণের ব্রাহ্মণবেশে তখায় আগমন, মারদের পুনৰ্ব্বার পুরুষরূপপ্রাপ্তি, ৩• তালধ্বজ নৃপতির পঞ্জীবিরহে বিলাপ, তালধ্বজের প্রতি ভগবানের উপদেশ, মহামায়ার মহিমাবর্ণন, ৩১ নারদকে বিষঙ্গ দেখিয়া ব্ৰহ্মার জিজ্ঞাস, ব্ৰহ্মাসমীপে নারদের স্ববৃত্তান্তৰধন, ব্যাস কর্তৃক গুণমাহাত্ম্যকীর্তন । ৭ম স্বন্ধে—১ চন্দ্র ও সুর্য্যবংশের কথারম্ভ, দক্ষ প্রজাপতি কর্তৃক প্রজাস্থষ্টি, নারদ কর্তৃক দক্ষপুত্ৰগণের দূরীকরণ, নারদের প্রতি দক্ষের শাপপ্রদান, ২ স্বৰ্য্যবংশবর্ণন, চ্যবনমুনির উপাখ্যান, শর্ধ্যাতিচুহিতৃ-কর্তৃক চাবনের নেত্রবিদ্ধকরণ, চাবনের নিকট শর্ধ্যাতির অমুনয়, চ্যবন কর্তৃক শর্য্যাতির কগুপ্রোর্থনা, কস্তাপ্রদানবিষয়ে মন্ত্ৰিগণের সহিত রাজার মন্ত্রণ, শর্য্যাতির চ্যবনঞ্চষিকে কস্তাদাম, ৪ শর্য্যাতি-কঙ্গার পতিসেবী, অশ্বিনীকুমারের চ্যবন-পত্নীদর্শন, অশ্বিনীকুমারের চ্যবনপত্নীর প্রতি উক্তি, ৫ চাবনের যৌবনপ্রাপ্তি, চ্যবন ও অশ্বিনীকুমারদ্বয়কে সমীমাকৃতি-দর্শন করিয়া সুৰস্কার ভগবতীত্বতি, ভগবতীপ্রসাদে মুকস্তার চ্যবনলতি, ৬ শর্ধ্যাতির চ্যৰনাশ্রমে গমন, শর্য্যাতির প্রতি যজ্ঞকরণ জন্ত চাবনের উক্তি, শর্য্যতিযজ্ঞে অশ্বিনীকুমারদ্বয়ের সোমপান, ৭ শর্য্যাতি-যজ্ঞে ইঞ্জের সহিত চ্যবনের ৰিবাদ, চ্যবনবিনাশের জন্য ইক্সের বজ্রত্যাগ, ইন্দ্রবিনাশ জক্ট চ্যবনকর্তৃক মহাস্করের উৎপাদন, চাবনের নিকট ইক্সের ক্ষমাপ্রার্থনা, রেবত নৃপতির উৎপত্তি, রেবতের স্বকল্প রেবতীকে গ্রহণ করিয়া ব্রহ্মলোকে গমন, ৮ ব্ৰহ্মাসমীপে রেবতের স্বকঙ্কার বরজিজ্ঞাসা, বলদেবকে রেবতীর ঘরনির্দেশ, রেবতৰূপতির বলদেবকে কস্তাদান, ইক্ষাকুর জন্মকথন, ৯ ইক্ষাকুর স্বপুত্র বিকুক্ষিয় শশাদ নামপ্রাপ্তি, ককুৎস্থের রাজ্যলাভ, ইন্ত্রের ককুৎস্থ নৃপতির বাহনত্ব, ককুৎস্থের বংশকীর্তন, যৌবনাশ্বের পুত্ৰজন্ত ঋষিগণসমীপে গমন, যৌবনাশ্ব হইতে মান্ধাতার উৎপত্তি, ১ • মান্ধাতার বংশধর্ণন, সত্যব্রতের উৎপত্তি, সত্যব্রতের রাজ্যত্যাগ, বিশ্বামিত্রপুত্র গালবের বৃত্তান্ত, সত্যব্রত কর্তৃক বশিষ্ঠের ধেমুহত্য, বশিষ্ঠশাপে সত্যব্রতের ত্রিশঙ্কু নামপ্রাথি, ১১ সত্যব্রতের মনস্তাপে মৃত্যুদ্রঘোগ, সত্যব্রতের প্রতি ভগবতীর প্রসন্নত, নৃপতি কর্তৃক সত্যব্রতকে অযোধ্যায় আনয়ন, সত্যভ্রতের প্রতি নৃপতির উপদেশ, ১২ ত্রিশঙ্কুর রাজ্যপ্রাপ্তি, ত্রিশঙ্কুর স্বশরীরে স্বৰ্গগমন জঙ্গ বশিষ্ঠের প্রতি উক্তি, বশিষ্ঠশাপে ত্রিশঙ্কুর চাগুলিত্বপ্রাপ্তি, ত্রিশঙ্কুর রাজ্যত্যাগ, হরিশ্চজের রাজ্যলাভ, ১৩ বিশ্বামিত্রের চওtলগৃহে কুকুরমাংসভক্ষণেচ্ছ, আপদকালে দেহ [ ৬১ও ] রক্ষাবিধিকথন, বিশ্বামিত্রসকাশে তৎপীর দুর্ভিক্ষ বিবরণ, । পুরাণ (দেবীভাগবত ) ত্রিশঙ্কুঙ্কত উপকারবর্ণন, ত্রিশঙ্কুর প্রত্যুপকারার্থ বিশ্বামিত্রের তৎসমীপে গমন, ১৪ ত্রিশঙ্কুর স্বর্গগমন, ত্রিশঙ্কুর স্বৰ্গচুতি, বিশ্বামিত্রপ্রভাবে ত্রিশঙ্কুর ইত্ৰলোকে গমন, হরিশ্চত্রের পুত্ৰজগু বরুণের তপস্ত, হরিশ্চজের প্রতি বরুণের বরদান, হরিশ্চঞ্জের পুত্রোৎপত্তি, হরিশ্চঞ্জের পুত্রদ্বারা যজ্ঞ করিবার প্রতিজ্ঞ, ১৫ হরিশ্চগ্রগুছে বক্ষণের আগমন, হরিশ্চন্দ্রের পুত্র রোহিতের নামকরণ, হরিশ্চত্রের গৃহে পুনৰ্ব্বার বরুণের আগমন, রোহিতের পলায়ন, বরুণশীপে হরিশ্চঞ্জের জলোদররোগপ্রাপ্তি, হরিশ্চন্ত্রের গৃহে পুনৰ্ব্বার বরণের আগমন, ১৬ রোহিতের সহিত ইন্দ্রের কথোপকথন, হরিশ্চঞ্জের প্রতি বশিষ্ঠের ক্রীতপুত্রদ্বারা যজ্ঞকরণের উপদেশ, অস্ত্রীগর্তের পুত্রবিক্রয়, শুনঃশেফের ক্ৰন্দন, গুনঃশেফকে পরিত্যাগ করিতে বিশ্বামিত্রের উপদেশ, শুনঃশেফকে পরিত্যাগ করিতে হরিশ্চত্রের অস্বীকার, ১৭ শুনঃশেফকে বিশ্বামিত্রের বরুণমন্ত্রপ্রদান, বকুণের গুমঃশেফ মুক্তি ও রাজাকে নীরোগকরণ, বিশ্বামিত্রের পুত্র হইয়া শুনঃশেফের তৎসঙ্গে গমন, রোহিতের সহিত হরিশ্চজের মিলন, হরিশ্চজকে লইয়া বশিষ্ঠ ও বিশ্বামিত্রের বিবাদ, ১৮ হরিশ্চন্দ্র কর্তৃক বনমধ্যে রোরুদ্যমান রমণীদর্শন, বিশ্বামিত্রকে লোকপীড়াকুর তপস্তা করিতে হরিশ্চঞ্জের নিষেধ, বিশ্বামিত্র কর্তৃক হরিশ্চন্দ্রভবনে মায়াশূকরপ্রেরণ, শূকর কর্তৃক রাজার উপবন-ভঙ্গ, শূকরের অনুসরণ ক্রমে রাজার গহন-বনে প্রবেশ, হরিশ্চত্র সমীপে বৃদ্ধ ব্রাহ্মণবেশে বিশ্বামিত্রের আগমন, ১৯ পুত্র বিবাহ জক্স ব্রাহ্মণবেশধারী বিশ্বtমিত্রের ধনপ্রার্থন, বিশ্বামিত্রকে হরিশ্চঞ্জের রাজ্যদান, হরিশ্চজ নিকটে বিশ্বামিত্রের দক্ষিণপ্রার্থনা, হরিশ্চন্ত্র-পুত্র ও ভাৰ্য্যার সহিত রাজ্যপরিত্যাগ, ২• দক্ষিণ জন্য বিশ্বামিত্রের উৎপীড়ন, হরিশ্চঞ্জের বারাণসীতে গমন, পঞ্জীবিক্রয়কথাশ্রবণে রাজার মোহ, ২১ হরিশ্চন্ত্রের নিকটে বিশ্বামিত্রের পুনৰ্ব্বার দক্ষিণ প্রার্থন, হরিশ্চন্দ্রপত্নীর কোনও ব্রাহ্মণ সমীপে ধনপ্রার্থনা করিতে অনুরোধ, ক্ষত্রিয়ের ভিক্ষা-নিষেধত্ব কখন, ২২ হরিশ্চঙ্গের পঞ্জীবিক্রয়ার্থ রাজমার্গে গমন, ব্রাহ্মণবেশে বিশ্বামিত্রের রাজপত্নীক্রয়, মাতৃবিরহে রোহিতের ক্ৰন্দন, ব্রাহ্মণের ग्रांजशूजऊन्द्र, इब्रि"कtखङ्ग बिगां”, विश्वांभिखएक इग्नि-कठछদক্ষিণাদান, অল্প ধনদর্শনে বিশ্বামিত্রের ক্রোধ, ২৩ আত্মবিক্রয়ার্থ হরিশ্চজের গমন, হরিশ্চন্ত্রকে ক্রয় করিতে চণ্ডালের আগমন, চগুলিকে আত্মসমর্পণে অসম্মত দেখিয়া বিশ্বামিত্রের কটুক্তি, বিশ্বামিত্রের দক্ষিণ शं।। ७थंश्tन, २६ एग्नेिश्छिदव्याः प्र काशैश् श्रशांनद्रक्र, इग्नि-करञब्र अन्नटां”, २८ cब्रांश्ठिाक সর্পদংশন, রাজপত্নীকে রোরুদ্যমান দেখিয়া ব্রাহ্মণের তিরস্কার,