পাতা:রবীন্দ্র-রচনাবলী (চতুর্দশ খণ্ড) - বিশ্বভারতী.pdf/২১

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


রবীন্দ্র রচনাবলী পীত উত্তরীয়তলে লয়ে মোর প্রাণদেবতার স্বহস্তে সজ্জিত উপহার— নীলকান্ত আকাশের থালা, তারি পরে ভুবনের উচ্ছলিত স্থধার পিয়ালা এই দিন এল অাজ প্রাতে যে অনস্ত সমুদ্রের শঙ্খ নিয়ে হাতে, তাহার নির্ঘোষ বাজে ঘন ঘন মোর বক্ষ-মাঝে । জন্ম-মরণের দিগ্বিলয়-চক্ররেখা জীবনেরে দিয়েছিল ঘের, সে অণজি মিলাল । শুভ্ৰ আপলো কালের বঁাশরি হতে উচ্ছসি যেন রে শূন্ত দিল ভরে । .جماعتی.سی আলোকের অসীম সংগীতে চিত্ত মোর ঝংকারিছে স্বরে স্বরে রণিত তন্ত্রীতে উদয় দিকপ্রাস্ত-তলে নেমে এসে শাস্ত হেসে এই দিন বলে আজি মোর কানে, “অম্লান নৃতন হয়ে অসংথ্যের মাঝখানে একদিন তুমি এসেছিলে এ নিখিলে নবমল্লিকার গন্ধে, সপ্তপর্ণ-পল্লবের পবন হিল্লোল-দোল-ছন্দে, শু্যামলের বুকে, নিনিমেষ নীলিমার নয়নসম্মুখে ।