পাতা:রবীন্দ্র-রচনাবলী (চতুর্দশ খণ্ড) - বিশ্বভারতী.pdf/৫৫২

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


গ্রন্থ-পরিচয় ¢©ፄ আর কিছুই না করে ছোটাে ছোটো গল্প লিখতে বলি তাহলে কতকটা মনের স্বখে থাকি এবং কৃতকার্ধ হতে পারলে হয়তো পাচজন পাঠকেরও মনের স্থখের কারণ হওয়া যায়। গল্প লেখবার একটা স্থখ এই, যাদের কথা লিখব তারা আমার দিনরাত্রির সমস্ত অবসর একেবারে ভরে রেখে দেবে, আমার একলা মনের সঙ্গী হবে, বর্ষার সময় আমার বদ্ধঘরের সংকীর্ণতা দূর করবে এবং রৌত্রের সময় পদ্মাতীরের উজ্জল দৃশ্বের মধ্যে আমার চোখের পরে বেড়িয়ে বেড়াবে। আজ সকালবেলায় তাই গিরিবালা নায়ী উজ্জল শুামবর্ণ একটি ছোটো অভিমানী মেয়েকে আমার কল্পনারাজ্যে অবতারণ করা গেছে। সবেমাত্ৰ পাচটি লাইন লিখেছি এবং সে পাচ লাইনে কেবল এই কথা বলেছি যে, কাল বৃষ্টি হয়ে গেছে, আজ বর্ষণ-অস্তে চঞ্চল মেঘ এবং চঞ্চল রৌজের পরস্পর শিকার চলছে, হেনকালে পূর্বসঞ্চিত বিন্দু বিন্দু বারিণীকরবী তরুতলে গ্রামপথে উক্ত গিরিবালার আসা উচিত ছিল, তা না হয়ে আমার বোটে আমলাবর্গের সমাগম হল— তাতে করে সম্প্রতি গিরিবালাকে কিছুক্ষণের জন্য অপেক্ষা করতে হল। তা হোক তৰু সে মনের মধ্যে আছে।...আমি ভাবলুম এই তো আমি কোনো উপকরণ না নিয়ে কেবল গল্প লিখে—নিজেকে নিজে স্বর্থী করতে পারি।. —ছিন্নপত্র m -ബ= বোলপুর ২৮ ভাদ্র ১৩১৭ ...সাধনা পত্রিকায় অধিকাংশ লেখা আমাকে লিখিতে হইত এবং অন্ত লেখকদের রচনাতেও আমার হাত ভূরিপরিমাণে ছিল । এই সময়েই বিষয়কর্মের ভার আমার প্রতি অপিত হওয়াতে সর্বদাই আমাকে জলপথে ও স্থলপথে পল্লীগ্রামে ভ্রমণ করিতে হইত—কতকটা সেই অভিজ্ঞতার উৎসাহে আমাকে ছোটো গল্প রচনায় প্রবৃত্ত করিয়াছিল। সাধনা বাহির হইবার পূর্বেই হিতবাদী কাগজের জন্ম হয়।...সেই পত্রে প্রতি সপ্তাহেই আমি ছোটো গল্প সমালোচনা ও সাহিত্যপ্রবন্ধ লিখিতাম। আমার ছোটো গল্প লেখার স্বত্রপাত ওইখানেই । ছয় সপ্তাহকাল লিখিয়াছিলাম । সাধনা চারি বৎসর চলিয়াছিল । বন্ধ হওয়ার কিছুদিন পরে এক বৎসর ভারতীর সম্পাদক ছিলাম, এই উপলক্ষ্যেও গল্প ও অন্তান্ত প্রবন্ধ কতকগুলি লিখিতে হয়।. —শ্ৰীপঞ্জিনীমোহন নিয়োগীকে লিখিত পত্র’ d [ চৈত্র ১৩৪৭ ] ...আমার রচনায় ধারা মধ্যবিত্ততার সন্ধান করে পান নি বলে নালিশ করেন

  • जड़ेषा : ब्रदौखजां५, ‘चांकूनबिछब्र', नद्विजिहै