পাতা:রবীন্দ্র-রচনাবলী (পঞ্চদশ খণ্ড) - বিশ্বভারতী.pdf/১৮৮

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


১৭৪ রবীন্দ্র-রচনাবলী অরুণরথের সে-ধ্বনি পথের মন্ত্র শুনায়ে দিলে তাই পায়ে-পায় দোহার চলায় ছন্দ গিয়েছে মিলে । তিমিরভেদন আলোর বেদন লাগিল বনের বক্ষে, নবজাগরণ পরশরতন আকাশে এল অলক্ষ্যে । কিশলয়দল হল চঞ্চল, শিশিরে শিহরি করে ঝলমল, স্বরলক্ষ্মীর স্বর্ণকমল চুলে বিশ্বের চক্ষে । রক্তরঙের উঠে কোলাহল পলাশকুঞ্জময়, তুমি আমি দোহে কণ্ঠ মিলায়ে গাহিতু আলোর জয় । সংগীতে ভরি এ প্রাণের তরী অসীমে ভাসিল রঙ্গে, চিনি নাহি চিনি চিরসঙ্গিনী চলিলে আমার সঙ্গে । চক্ষে তোমার উদিত রবির বন্দনবাণী নীরব গভীর, অস্তাচলের করুণ কবির ছন্দ বসনভঙ্গে । উষারুণ হতে রাঙা গোধূলির দূরদিগন্তপানে বিভাসের গান হল অবসান বিধুর পুরবীতানে ।