পাতা:রবীন্দ্র-রচনাবলী (সপ্তম খণ্ড) - বিশ্বভারতী.pdf/৫১

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


। कुश्वं কলকল্পোলে লাজ দিল আজ নারীকণ্ঠের কাকলি । মৃণালভূজের ললিত বিলাসে চঞ্চলা নদী মাতে উল্লাসে, আলাপে প্রলাপে হালি-উচ্ছ্বাসে । আকাশ উঠিল আকুলি । স্বান সমাপন করিয়া যখন কুলে উঠে নারী সকলে মহিষী কহিলা, “উহু । শীতে মরি, সকল শরীর উঠিছে শিহরি, জেলে দে আগুন ওলো সহচরী, শীত নিবারিব অনলে |’ । সখীগণ সবে কুড়াইতে কুট চলিল কুসুমকাননে । কৌতুকরসে পাগলপরানী শাখা ধরি সবে করে টানাটানি, সহসা সবারে ডাক দিয়া রানী কহে সহস্তে আননে— ‘ওলো তোরা আয় ! ওই দেখা যায় কুটির কাহার অদূরে, ওই ঘরে তোরা লাগাবি অনল, তপ্ত করিব করপদতল’ এত বলি রানী রঙ্গে বিভল হাসিয়া উঠিল মধুরে । কহিল মালতী সকরুণ অতি, "এ কি পরিহাস রানীমা ! আগুন জালায়ে কেন দিবে নাশি ? 8?