পাতা:শিখ-ইতিহাস.djvu/২২৩

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


ՖԳԵ শিখ-ইতিহাস বাসভূমি চন্দ্রভাগা-নদী-তীরস্থিত 'উচ’ নগর কিছুকালের জন্য ফতে সিং আলহুওয়ালিয়া অধিকার করিয়া লইয়াছিলেন। যাহা হউক, পিতার মিত্র যুশা সিং স্বত্রধরের পুতু মৃত যোধ সিং রামগড়িয়ার অধিকৃত সমুদায় রাজ্য, রণজিৎ সিং অধিকার করিয়া লইলেন ; সে সকলই তাহার রাজ্যের অস্তভূক্ত হইল। সংসার চাদ বিশেষ সম্মান প্রাপ্ত হইলেন ; কিন্তু পূর্ব-মিত্রের সাক্ষাৎকার লাভে তিনি কিছু ভীত হইয়াছিলেন। অতঃপর ১৮১৬ খ্ৰীষ্টাব্দে মহারাজ বিজয়োল্লাসে অমৃতসর হইতে প্রত্যাবর্তন করিলেন।২১ পঞ্জাবের উত্তরস্থিত সমতলভূমি ও পর্বত-পাদদেশস্থিত প্রদেশ সমূহের অধিকাংশ স্থলে রণজিৎ সিংহের আধিপত্য বিস্তৃত হইয়াছিল। সেই সকল স্থানে তিনি শাসনশৃঙ্খলা-স্থাপন করিয়াছিলেন। এক্ষণে রণজিৎ সিংহের রাজ্য, দক্ষিণ ও পশ্চিম উভয়দিকে, কাবুলের অন্তভূক্ত অথবা নামমাত্র শাসনাধীন প্রদেশসমূহে সীমাবদ্ধ। সেই সকল স্থান অধিকারের কল্পনা মহারাজ পূর্ব হইতেই স্থির করিয়াছিলেন। কিন্তু তাহার শারীরিক অসুস্থতা নিবন্ধন স্বাস্থ্য-হানি-হেতু এক বৎসরের জন্য র্তাহার কল্পনা স্থগিত রহিল। মুলতান অধিকার করাই, তাহার প্রথম উদ্দেশু ছিল। ১৮১৮ খ্ৰীষ্টাব্দের প্রারম্ভে জাম্বুর গর্ব-খৰ্বকারী পুত্র খড়গ সিংহের সেনাপতিত্বে মুলতান আক্রমণের জন্য তিনি একদল সৈন্ত প্রেরণ করিলেন। মহারাজ কি কারণে মুলতান আক্রমণে উদ্বুদ্ধ হইয়াছিলেন,— এ স্থলে তাহার আলোচনা বা সে সম্বন্ধে কোন কথা জিজ্ঞাসা করা নিম্প্রয়োজন । তিনি মনে করিয়াছিলেন,—আফগানদিগের ন্যায় শিখদিগেরও ইচ্ছামত যে কোন দেশ অধিকারের ক্ষমতা আছে । অধিকন্তু আমেদ সার বংশধরগণের অধীনতা-পাশ ছিন্ন করিয়া মূলতানের প্রকৃত অধিকারী, স্বাধীনতা অবলম্বন করিয়াছিলেন । এই সময়ে বহু অর্থের দাবী করা হইল ; কিন্তু সে দাবী প্রত্যাখ্যাত হইল। ফেব্রুয়ারী মাসের মধ্যেই শিখগণ মুলতান অধিকার করিল ; কিন্তু জুন মাসের প্রথম পর্যন্তও দুর্গটি অধিকৃত হইল না । অত:পর দুর্গ অধিকারের এক স্বযোগ উপস্থিত হইল। সাধু সিং নামক ‘আকালী’ সম্প্রদায়ের এক ব্যক্তি এই সময় "খালসার” পক্ষ হইতে যুদ্ধে গমন করিল, এবং তাহার ক্ষুদ্র সৈন্যদলের আকস্মিক আক্রমণে অতি সহজেই কার্যসিদ্ধ হইল। শিখগণ কি যেন এক অভাবনীয় শক্তিতে সহসা অনুপ্রাণিত হইয়া উঠিল। উত্তেজনাবশে সকলে মিলিত হইয়া দুর্গের বহির্ভাগ অধিকার করিল, এবং চারি মাস কাল ক্রমাগত আক্রমণে দুর্গের যে অংশ ভগ্ন হইয়াছিল, তাহার মধ্য দিয়া শিখসৈন্ত অতি সহজেই দুর্গ মধ্যে প্রবিষ্ট হইল। এই আক্রমণে তাৎকালিক শাসনকর্তা মজঃফর খাঁ ও তাহার দুইটি পুত্র নিহত হইলেন, এবং অপর দুই পুত্র বন্দী হইল। সৈন্তগণ বহু দ্রব্য লুণ্ঠন করিল। কিন্তু সৈন্তগণ, লাহোরে পৌঁছিলে, অর্থরাশি রাজকোষে জমা রাখিতে মহারাজ অনুমতি করিলেন। তাহার অনুমতি যে সম্পূর্ণরূপে উপেক্ষিত হয় নাই, ওজন্য তিনি হয় তো sa i nita xttax Fs “Hafrsffr. »ov a R >>> bil (Compare Murray's "Runjeet Singh,” p. 108. 111. )