পাতা:সংবাদপত্রে সেকালের কথা প্রথম খণ্ড.djvu/১৮৪

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


S$$ সংবাদ পত্রে সেনকালেৰ কথা ছড়াছড়ি ঠাসাঠাসি কষাকষি ফেলাফেলি ঠেলাঠেলি শেষে গড়াগড়ি বাড়াবাড়ি উলটাপালটি লপটালপটি করিয়া বড় শক্তাশক্তির পর এক জন জয়ী হয় তাবৎ লোক তাহাকে সাবাসি২ বলিয়া উঠে এই মত প্রায় ৩০ জন লোকের যুদ্ধ দেখা গেল। ইহার মধ্যে এক ব্যক্তির আশ্চৰ্য্য যুদ্ধ দেখিলাম । শ্ৰীযুত বাবু নন্দদুলাল ঠাকুরের বৈদ্যনাথনামক এক জন চাকর তাহার বয়ঃক্রম অনুমান পয়ত্রিশ বৎসর হইবেক সে ঐ যুদ্ধ স্থলে আসিয়া উপস্থিত হইল তাহার প্রতিযোদ্ধা শ্ৰীযুত পামর সাহেবের এক চাকর আইল সে ব্যক্তির আকার প্রকার বয়ঃক্রম ঐ ব্যক্তিহইতে দেড় হইবেক । যখন দুই জনে যুদ্ধোদ্যোগ করিতে লাগিল তৎকালে প্রায় সকলে কহিলেক যে বাবুর চাকর কখনও ঐ সাহেবের চাকরের নিকট জী হইতে পরিবেক না। ইহাতে আশ্চৰ্য্য এই যে বাবুর ভূত্য ঐ বৈদ্যনাথ জয়ী হইল । দুই বার সাহেবের চাকর তাহার নিকট পরাজিত হইল তদর্শনে অনেকে হর্ষযুক্ত হইয়া আনন্দজনক শব্দ উচ্চারণ করিলেন। বাৰু মনে মহামোদ পাইয়া বৈদ্যনাথকে কোল দিলেন এবং তাহার উৎসাহবৃদ্ধি করণার্থে তাহাকে আপন গাত্রের বস্ত্র অর্থাৎ একলাই শিরপা দিলেন । এই মল্লযুদ্ধের বিশেষ শুনিলাম যে যত লোক সে স্থানে যুদ্ধ করিতে আইসে তাহারা পারিতোষিক অনেক টাকা পায় যে লোক পরাজিত হয় সে যত পায় যে ব্যক্তি জয়ী সে তাহার দ্বিগুণ পায়। এইমত এই লড়াই চৈত্র মাসে আরম্ভ হইয়াছে শুনিতে পাই যে আষাঢ় মাসপর্য্যস্ত হইবেক ইহা প্রতি শনিবারে হয়। এই আনন্দজনক ব্যাপারের অধ্যক্ষ শ্ৰীযুত রাজা বৈদ্যনাথ রায় বহাদর ও শ্ৰীযুত রাজা নৃসিংহচন্দ্র ও চিতপুরনিবাসি শ্ৰীযুত নবাব সাহেবের দুই জন ও শ্ৰীযুত মেজর কেমিল সাহেব ও শ্ৰীযুত পামর সাহেব ও শ্ৰীযুত বাবু বীরেশ্বর মল্লিক ও শ্ৰীযুত বাৰু শিবচন্দ্র সরকার এহারা সবিস্ক্রিপসিয়ান অর্থাৎ চাদা করিয়া কতকগুলিন টাকা জমা করিয়াছেন তদ্বারা ঐ কৰ্ম্ম সম্পন্ন হইতেছে ইহা দর্শনে এতদেশীয় এবং ইংগ্রওঁীয় ভদ্র লোক অনেকে গিয়া থাকেন আর অপর লোকও অপৰ্য্যাপ্ত হইয়া থাকে। - ( ১৩ আগষ্ট ১৮২৫ । ৩০ শ্রাবণ ১২৩২ ) কুস্তি লড়াই –বৰ্ত্তমান মাসের নবম দশম দিবসে বৈকালে মোং ধৰ্ম্মপুরের শ্ৰীযুত বাবু শ্ৰীনাথ জমিদারের বাগানে মল্লযুদ্ধ হইয়াছিল। স্বদেশীয় বিদেশীয় মোগল পাঠান মুসলমান বাঙ্গালি তাহারা দুই২ জন এক২ বার মল্লযুদ্ধ করিয়াছিল যত লোক সেখানে কুস্তি করিতে আইসে তাহারা পারিতোষিক পায় যে ব্যক্তি জয়ী হয় তাহার অধিক প্রাপ্তি হয় এই কুস্তি দর্শনে হৃষ্টমনে ঐ স্থানে শ্ৰীযুত বিচারকর্তা সাহেব লোকেরা ও আর২ ইংরেজ লোকেরাও উপস্থিত হইয়াছিলেন এবং অনেক মান্ত লোকও গিয়াছিলেন তাহাতে জমিদার মহাশয় সকলের উত্তমরূপ সম্মান রাথিয়াছেন ।