পাতা:সংবাদপত্রে সেকালের কথা প্রথম খণ্ড.djvu/২১৬

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


সংবাদ পত্রে সেনকালেৰ কথা سو۹tج কি অনুচিত জানিতে পারিবেন। শান্তিপুর কোন দুঃখিনী স্থত কাটনির দরখাস্ত — সং চং । ( ১৭ জুলাই ১৮১৯ । ৩ শ্রাবণ ১২২৬ ) নূতন গঞ্জ —শ্ৰীশ্ৰীযুত মহারাজ তেজশ্চন্দ্র রায় বাহাদুর আপন বাটীর পশ্চিমে নূতন এক গঞ্জ করিয়াছেন সেখানে দোকানি পসারি অনেক২ লোককে দোকান করিবার কারণ ছয় মাস সুদ ব্যতিরেকে টাকা কৰ্জ দিতেছেন ইহাতে প্রতিদিন দোকানি বাড়িতেছে এবং তিনি আপন দেশে যে২ দ্রব্য পাওয়া যাইত না তাহীও কলিকাতা মোকামহইতে আনাইয় তাহার দোকান করাইয়াছেন। ঐ গঞ্জের নাম রাধাগঞ্জ ঐ গঞ্জের দক্ষিণ বঙ্কেশ্বরী নামে নদী অাছে সেই নদী পার হইবার কারণ পাকা এক পুল প্রস্তুত করাইতেছেন অদ্যাপি প্রস্তুত হয় নাই ।

( ২১ আগষ্ট ১৮১৯ । ৬ ভাদ্র ১২২৬ ) নদী মিলন —মহারাজ শ্ৰীযুত তেজশ্চন্দ্র রায় বাহাদুর এই বাসনা করিয়াছেন যে আপনার নূতন রাধীগঞ্জ বঢ়াইবার কারণ খড়ী নদী কাটাইয়া গৌর নদীতে আনাইয়া পশ্চাৎ ঐ গৌর নদী কাটাইয়া আপন গঞ্জের নিকটবর্তি বঙ্কেশ্বরী নদীতে মিশ্রিত করাইবেন যেহেতুক বর্ষাকালে ঐ সকল নদী প্রবল হইলে অনেক২ জিনিসের আমদানী হইবেক তৎপ্রযুক্ত মহারাজ শ্ৰীযুত পরাণচন্দ্র বাবুপ্রভৃতিকে ঐ সকল নদী তদারক করিতে পাঠাইয়াছিলেন। র্তাহারা তদারক করিয়া মহারাজকে সকল জ্ঞাত করাইলেন । মহারাজ সে বিষয়ে যথেষ্ট উদ্যুক্ত আছেন। সে কৰ্ম্ম সিদ্ধ হইলে দিন২ তাহার রাজধানী শহরের বৃদ্ধি হইবেক । ( ৫ আগষ্ট ১৮২০ । ২২ শ্রাবণ ১২২৭ ) নূতন বন্দর —শ্ৰীযুত মুন্সী গোলাম হোসন মোং বৈদ্যবাটীর উত্তরে কোম্পানির বান্ধা রাস্থার পূর্ব গঙ্গার পশ্চিম তীরে নূতন গঞ্জ ও হাট বসাইতেছেন সেখানে দোকান ঘর প্রায় দশ বারখান প্রস্তুত হইয়াছে আর২ও অনেক হইবেক এমত উদ্যোগ অনেক হইতেছে এবং সেখানকার গঙ্গার পোস্ত বান্ধান যাইবে সেখানকার প্রজা লোকেরদিগকে আপন২ ঘর বাড়ীর মূল্য দিয়া উঠাইয়া দিতেছেন তাহারা তাহার উত্তর চাপদানির মাঠে গিয়া বসতি করিতেছে এবং আপন অধিকারস্থ প্রজারদিগকে এমত শাসন করিয়া দিয়াছেন যে তাহারা কোন প্রকারে বৈদ্যবাটীর পুরাণ হাটে না গিয়া ঐ নূতন হাটে যায় এবং আপনার নূতন হাটে যদি কাহারো দ্রব্যাদি বিক্রয় না হয় তবে সেই দ্রব্য আপনি মূল্য দিয়া লইবার স্বীকার করিয়াছেন এবং কলিকাতার ব্যাপারি লোকেরা ষে২ জিনিস পুরাণ হাটে খরিদ করিয়া নৌকা বোঝাই করিত ও কলিকাতাতে লইয়া গিয়া বিক্রয় করিয়া মুনফা করিত তাহারা যদি পুরাণ হাটে না গিয়া নূতন হাটে যায় এবং সেখানে সেরূপ জিনিস না পায় তবে ঐ ব্যাপারিরদের ষে মুনফ তাহাতে হইত