পাতা:সংবাদপত্রে সেকালের কথা প্রথম খণ্ড.djvu/৩৭৭

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


বিবিধ *へé 。 ( ২৯ জুন ১৮২২ । ১৬ আষাঢ় ১২২৯ ) ধনলাভ ॥--কালীঘাটের নীচবৰ্ত্তি আদিগঙ্গাতে ষে পুল হইতেছে তাহা সকলে জাত আছেন ঐ পুলের কৰ্ম্ম বন্দুয়ান লোকেরা করিতেছিল...। { ২১ সেপ্টেম্বর ১৮২২ । ৬ আশ্বিন ১২২৯ ) নৃতন সাকো —পূৰ্ব্বে ছাপান গিয়াছে যে কালীঘাটে টালির খালের উপরে এক সাকো প্রস্তুত করা মাইবে । ঐ সাকোর লোহার কৰ্ম্ম তাবৎ প্রস্তুত হইয়াছে কেবল একত্র করিয়া দিলেই প্রস্তুত হয় এবং ঐ সাকোতে পাকা গাথনির যে আবশুক তাহাও প্রায় প্রস্তুত হইয়াছে । তাহার প্রস্থ অকুমান ছয় হাত হইবে এবং আলীপুরে ও খিদিরপুরে ষে সাকো আছে তাহাহইতে এই সাকো কিছু উচ্চ হইবেক । কএক দিবসের মধ্যে সাকো প্রস্তুত হইলে পর সমাচার দেওয়া যাইবেক । ( ১৫ মার্চ ১৮২৬ ৩ চৈত্র ১২২৯ ) রজুময় পুল ॥—মোং কলিকাতার ডাকঘরের সম্মুখে শ্ৰীযুত কোম্পানি বহাদরের ডাক ঘরের অধ্যক্ষ সাহেবের কতৃক এক নূতন রজ্জ্বময় পুল প্রস্তুত হইয়াছে তাহাতে উপকার এই যে যেখানে২ বড়২ খলপ্রভৃতিপ্রযুক্ত কোম্পানির ডাক যাওনের বাধা জন্মে সেখানে এই পুলদ্বারা অনায়াসে পার হওয়া যাইবেক । অনুমান হয় যে ইহাতে গাড়ী ও হাতীপ্রভৃতি পার হইতে পরিবে এই পুল লম্বে তিল্পান্ন হাত ও চৌড় ছয় হাত এই পুল কেবল নমুনামাত্র প্রস্তুত হইয়াছে আর একটা এক শত ছয় হাত লম্বা রজুময় পুল প্রস্তুত হইতেছে ইহা হইলে তাহার গুণ প্রকাশ করা যাইবে । { ১৫ জানুয়ারি ১৮২৫ ৪ মাঘ ১২৩১ ) খিদিরপুরের সেতু —আমরা আনন্দিত হইয়া প্রকাশ করিতেছি যে খিদিরপুরের খালের উপর যে নূতন সেতু প্রস্তুত হইবেক তৎকৰ্ম্ম ক্রমে সম্পন্ন হইতেছে। তথাকার পুরাতন সেতু কলিকাতার লজ্জার বিষয় । এই নুতন সেতু লৌহময় এবং শুংখলদ্বারা উদ্বক্ষিত । ( ১৪ নবেম্বর ১৮১৮ । ৩৯ কাৰ্ত্তিক ১২২৫ ) নূতন খাল –কুলপীর নীচে এক খাল সমুদ্রপৰ্যন্ত যায় সেই খালের গোড় অবধি কলিকাতাপধ্যস্ত একটা নূতন খাল কাটিবার নিমিত্ত পরামর্শ হইতেছে যদি এই মত খাল কাটা যায় তবে তাহাতে এই উপকার হইবে যে সমুদ্রহইতে যে সকল দ্রব্য কলিকাতাতে