পাতা:অক্ষয়কুমার বড়াল গ্রন্থাবলী.djvu/৫৯

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


         পাড়ে পাড়ে চকা চকী     বসে' আছে দুটী দুটী;
               বলাকা মেঘের কোলে ভাসে;
          ক্কচিৎ গ্রামের বধূ       শূণ্য কুম্ভ ল'য়ে কাঁখে,
               তরু-তল দিয়া ধীরে আসে।
          ক্কচিৎ অশ্বথ্ব-তলে       ভিজিছে একটী গাভী;
                 টোকা মাথে যায় কোন চাষী;
          ক্কচিৎ মেঘের কোলে,    মুমুর্ষূর হাসি সম,
                  চমকিছে বিজলীর হাসি।
           মাঠে নবশ্যাম ক্ষেতে     কচি কচি ধান-গাছ
                  মাথাগুলি জাগাইয়া আছে--
          কোলে লুটিতাছে জল       টল্-মল্ থল্-থল্,
                  বুকে বায়ু থর-থর নাচে।
           সুদূর এ মাঠের শেষে     জমে' আছে অন্ধকার, 
                  কোথা যেন হ'তেছে প্রলয়!
          কুটীরা বসিয়া গৃহী        পুত্র-পরিবার সহ 
                  কত দুর্য্যোগের কথা কয়।
           চেয়ে আছি শূণ্য পানে,   কোন কাজ হাতে নাই--
                  কোন কাজে নাহি বসে মন!
           তন্দ্রা আচে, নিদ্রা নাই;   দেহ আছে মন নাই;
                  ধরা যেন অস্ফূট স্বপন;
           এই উঠি, এই বসি;     কেন উঠি, কেন বসি!
                  এই শুই, এই গান গাই।
           কি গান--কাহার গান!    কি সুর--কি ভাব তার!
                 ছিল কভু, আজ মনে নাই!