পাতা:আকাশ-প্রদীপ-রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর.djvu/৫৫

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটিকে বৈধকরণ করা হয়েছে। পাতাটিতে কোনো প্রকার ভুল পেলে তা ঠিক করুন বা জানান।
আকাশ-প্রদীপ
 

আমার চেয়ে কম ঘুমন্ত নিশাচরের দল
খোঁজ নিয়ে যায় ঘরে এসে, হায় সে কী নিষ্ফল।
কখনাে বা হিসেব ভুলে আসে মাতাল চোর,
শুন্য ঘরের পানে চেয়ে বলে, “সাঙাৎ মাের,
আছে ঘরে ভদ্র ভাষায় বলে যাকে দাওয়াই?”
নেই কিছু তাে, দুএক ছিলিম তামাক সেজে খাওয়াই।
একটু যখন আসে ঘুমের ঘাের
সুড়সুড়ি দেয় আরসুলার পায়ের তলায় মাের।
দুপুর বেলায় বেকার থাকি অন্যমনা;
গিরগিটি আর কাঠবিড়ালীর আনাগােনা
সেই দালানের বাহির ঝােপে;
থামের মাথায় খােপে খােপে
পায়রাগুলাের সারাটা দিন বকম্ বকম্।
আঙিঁনাটার ভাঙা পাঁচিল, ফাটলে তার রকম রকম
লতাগুল্ম পড়ছে ঝুলে,
হলদে সাদা বেগনি ফুলে
আকাশ পানে দিচ্ছে উঁকি।
ছাতিম গাছের মরা শাখা পড়ছে ঝুঁকি
শঙ্খমণির খালে,
মাছরাঙারা দুপুর বেলায় তন্দ্রানিঝুমকালে
তাকিয়ে থাকে গভীর জলের রহস্যভেদরত
বিজ্ঞানীদের মতো

৪৪