পাতা:ইন্দুমতী - যতীন্দ্রনাথ মুখোপাধ্যায়.pdf/১৭৯

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা হয়েছে, কিন্তু বৈধকরণ করা হয়নি।
১৬৫
দ্বিতীয় খন্ড-সপ্তম সর্গ।

নবীন ও দেবব্রত লইয়া ধীবরে
তখনি চলিয়া গেল নদী পরপারে,
রাণীমা উদ্দেশে,তাঁ’র প্রাসাদে সুন্দর।
শুনিল রাণীমা আর নাহি এ সংসারে।
নগেন্দ্র এখন রাজা,তিনিও আবার
সম্প্রতি গেছেন নানা তীর্থ পর্য্যটনে।
আর ইন্দু? ইন্দুমতী নাহি কেহ তথা,
আছে এক ইন্দুরাণী অদূর প্রাসাদে।
 ভাবিতে ভাবিতে ধীরে তাঁহারা তখন
চলিলেন রাণী ইন্দুদেবীর প্রাসাদে।
পাইলেন পরিচয় সেখানে ইন্দুর।
শুনিলেন আর, রাজা নগেন্দ্রের সাথে,
গিয়াছেন ইন্দুরাণী তীর্থ পর্য্যটনে।
বলিতে কেহই কিন্তু পারিলনা এবে
কোন্ তীর্থে আছে রাণী। শুনিয়া সকল,
কিছুক্ষণ চিন্তাকরি দেবব্রত তবে,
উঠিল সেখান হ’তে নবীন সহিত,
ধীবরে লইয়া আর। কোন পরিচয়
দিলনা ইন্দুর কোন কর্ম্মচারী কাছে।
ধীবরে বিদায় দিয়া যোগ্য পুরস্কারে
ফিরিল তাহারা সবে নৌকায় এখন।
 নবীন বিস্মিত হয়ে বলিল তখন,