পাতা:কবিতা - কেশবচন্দ্র কুণ্ডু.pdf/৪৮

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটিকে বৈধকরণ করা হয়েছে। পাতাটিতে কোনো প্রকার ভুল পেলে তা ঠিক করুন বা জানান।
৪০
কবিতা।



নীরব গভীর রেতে   সত্ৰাস শ্রুতির পথে
আশার বিহ্বলে যথা নিরাশ ক্রন্দন,
বিষাদে বিষাদ গাঁথা   গত পুন প্রিয় কথা
হারান সুখের পাখী স্মৃতিতে যেমন।

ডুবে ডুবে যেন যায়   ছিন্ন তারে মৃতপ্রায়
কি বলিতে কি বা বলে বীণার ঝঙ্কার;
মর্ম্মভেদী ওই স্বর   নিশি দিন নিরন্তর
শুনিতে পারি না পার্থী শুনিতে ষে আর!

ধরার সহাস হাসে   মধুভরা মধুমাসে
ঊষার গগনে পাখী নবদিবাকর,
জগৎ আনন্দময়   যেন সুখ সমোদয়
নয় কিরে নয় পাখী নয় মনোহর?

নবদূর্ব্বাদলে দুলে   ঘুমে যেন ঢুলে ঢুলে
নীহারের কণাগুলি নয় কিরে নয়,
প্রভাত-পবনে জেগে   রঞ্জি রবি নবরাগে
নয়ন-জুড়ান রূপে প্রীতি শান্তিময়।