পাতা:কলিকাতা সেকালের ও একালের.djvu/৭৯৮

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


৭৬২ কলিকাতা সেকালের ও একালের । মিডল্টন ষ্ট্রট। মিডলটন ষ্ট্রীটের নামকরণ লইয়া একটু মতভেদ দৃষ্ট হয়। কোন কোন মতে, বিশপ মিডলটনের নামানুসারে, এই রাস্তার নামকরণ হইয়াছে। আবার অন্যমতে স্যামুয়েল মিডলটনের নাম হইতেই এই রাস্তার নামকরণ। এই সামুয়েল মিডলটন, লর্ড কর্ণওয়ালিস ও লর্ড ওয়েলেসলির আমলে, কোম্পানির সিভিল-সার্ভিস ভুক্ত ছিলেন । ইনি কয়েক মাস কাল কলিকাতার পুলিশ-ম্যাজিষ্ট্রেট হইয়াছিলেন—তৎপরে সুন্দরবন কমিশনারের পদে নিযুক্ত হইয়া, অনেক ডাকাত দমন করেন। (১৭৯২ খ্ৰীঃ অব ) এই পথের আশে পাশে এই শেষোক্ত মিডলটন সাহেবের অনেক জমী জমা ছিল। এই মিডলটন ষ্ট্রীট সাহেবী-কোয়াটার হইলেও এখানে দ্বারবঙ্গের মহারাজের একটী প্রাসাদ আছে। রসেল প্লট । সেকালের সুপ্রীমকোর্টের চিফ-জষ্টিস স্যর হেনরি রসেলের নামে, এই পথ্যার নামকরণ হইয়াছে। রসেল সাহেব ১৮৯৬ হইতে ১৮১৩ খৃঃ অব্ব পর্য্যন্ত সুপ্রীমকোটের জঞ্জীয়তি করিয়াছিলেন। তিনিই এই পথিপার্শ্বে, প্রথম বাটী নিৰ্ম্মাণ করেন । এই পথের ১২ নম্বরের বাড়ীতে স্বনামখ্যাত চিফ জষ্টিস্ স্যর বার্ণিস পীকক বাস করিতেন। ১৮৫৯ খ্ৰীঃ অব হইতে ১৮৭৩ খৃঃ অব্দ পর্য্যস্ত ইনি জজিয়তী করেন। ১৩নং বাটতে স্বনাম প্রসিদ্ধ জন নৰ্ম্মাণ সাহেব বাস করিতেন । এই নৰ্ম্মাণ সাহেবকেই একজন মুসলমান, হাইকোর্টের মধ্যে হত্যা করে । ( ১৮৭১ খ্ৰীঃ অব ) পার্ক ষ্ট্রীট । সুপ্রীমকোর্টের প্রথম চিফ-জ্বষ্টিস, স্যর ইলাইজ ইস্পির সময় হইতে “পার্ক ষ্ট্রট” এই নামের উদ্ভব সম্ভব বলিয়া বোধ হয়। - ইম্পি এক স্ববৃহৎ উদ্যানবাটীর মধ্যে বাস করিতেন। তাহার চতুঃপাশ্ব ব্যাপিয়া একটা “পার্ক" ছিল। আজকাল যাহা “লরেটো-কনভেন্ট” বলিয়া পরিচিত, তাহাই স্যর ইলাইজ। ইম্পির আবাসবাটী ছিল । এই স্থান, ইম্পির সময়েও জঙ্গল পূর্ণ ছিল । সেকালে অক্সধারী সিপাহীরা, ডাকাত তাড়াইবার জন্য চিফজষ্টিস ইম্পির বাট পাহার দিত। যে সকল চাকর বকর র্তাহার বাড়ীতে কাজ করিত, তাহারা সন্ধ্যার পর, পার্ক স্ট্রট হইতে কলিকাতার