পাতা:কাশীদাসী মহাভারত.djvu/৪০২

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


সভাপর্বর্ব । ] বালার্কমণ্ডলাকারলোচনত্রযুভূষিতাং । Հ8> আন ধৰ্ম্ম অধিকারী, পাঠাইল অগ্রসরি, ভ্ৰাতৃ মন্ত্রী বন্ধুমাঝে, যে কৰ্ম্ম যাহার সাজে, ভ্ৰাতৃ মন্ত্রিগণ আস্তে ব্যস্তে ॥ স্থানে স্থানে করি আয়োজন ॥ ভীম পার্থ অনুব্রজি, গোবিন্দে ষড়ঙ্গ পূজি, লইয়া গেলেন নিজধাম । ধৰ্ম্মের নন্দনে দেখি, শ্ৰীকৃষ্ণ দুরেতে থাকি, , ভূমে লুটি করেন প্রণাম ॥ অসংখ্য অমূল্য ধন, করিলেন বিতরণ, অশ্বগজ শৃঙ্গী অগণিত । ধৰ্ম্ম আনন্দিত হৈয়া, কৃষ্ণে আলিঙ্গন দিয়া, । পূজিলেন যেমন বিহিত ॥ পাণ্ডব-নক্ষত্র মাঝ, বসিয়া সভায় সৰ্ব্বজন । বসিয়া গোবিন্দ পাশে, কহিছেন বিনয় বচন ॥ তব অনুগ্রহ বলে, না রহিল অসাধ্য আমার । -> আমি না করিতে যত্ন, মিলিল অনেক রত্ন, : নাহি স্থল থুইতে ভাণ্ডার ॥ নিশ্চয় আমারে যদি, কৃপা আছে গুণনিধি, ' সৰ্ব্ব দ্রব্য রাখি কোন স্থলে । শুনিয়া তোমার মুখে, তুষিব অমর লোকে, , দ্বিজহস্তে সমপি সকলে ॥ পিতৃ আজ্ঞা হৈতে তার স্বর্গ কাম নাহি করি । তব পদাম্বুজে মাগি ভিক্ষ । ওহে প্রভু মহাভুজে, শুনি তব মুখাম্বুজে, লইব যজ্ঞের আমি দীক্ষা ॥ যদি লয় তব মন, নিমন্ত্রিয়া আনি নৃপবর । রাজার বিনয় শুনি, কোমল গভীর বাণী, আশ্বাসি কহেন গদাধর ॥ এ মহীমণ্ডল মাঝ, যত আছে মহারাজ, তব গুণে বগ হবে সবে । আমার পরম ভাগ্য, নিষ্কণ্টকে কর যজ্ঞ, রাজসূয় তোমারে সস্তবে ॥ আমা হৈতে যেই হয়, আজ্ঞা কর মহাশয়, আর যত আছে যদুগণ । లిసి-రిపి কৃষ্ণ যেন দ্বিজরাজ, যুধিষ্ঠির মৃদুভাষে, ; এ ভারত ভূমণ্ডলে, ; আজ্ঞা কর জনাৰ্দ্দন, ; | | গোবিন্দের আজ্ঞা পেয়ে,ভূপতি সানন্দ হয়ে কৃতাঞ্জলি করেন স্তবন। তখনি জানি যে আমি, যখন আইলা তুমি, মম বাঞ্ছা হইল সাধন ॥ তোমাতে যে ভক্তি ঋদ্ধি,ভক্ত বাঞ্ছা কর সিদ্ধি তুমি ভক্তজনে কৃপাবান । কাশীদাস বলে যদি, তরিবা এ ভবনদী, ভজ সাধু দেব ভগবান ॥ --- রাজস্থয় যজ্ঞ প্রসঙ্গ ! তবে যুধিষ্ঠির রাজা হয়ে হৃষ্টমন । সহদেবে ডাৰিক আজ্ঞা করেন তখন ॥ ধৌম্য পুরোহিত স্থানে জিজ্ঞাসহ আগে । রাজসূয় যজ্ঞেতে যতেক দ্রব্য লাগে ॥ যে কিছু কহেন ধৌম্য কর সমাবেশ । দ্বিগুণ করিয়া দ্রব্য করই বিশেষ । দ্বিজ ক্ষত্র বৈশ্ব শূদ্র এই চারি জাতি । নিমন্ত্রিতে দূতগণ যাউক ঝটিতি ॥ ইন্দ্রসেন বৃষক সারথি দম আদি । , তিন জন সংযোগে করহ ভক্ষ্যবিধি ॥ চৰ্ব্ব চুৰ্য্য লেহু পেয় কর বহুতর । রস গন্ধ আদি যত রস মনোহর ॥ যখন যে চাহে তাহা না করিবে আন । শীঘ্ৰগতি নিয়োজন কর স্থানে স্থান ॥ দ্বিজগণে নিমন্ত্রিতে সত্যবতী-সুত । রাজ্যে রাজ্যে প্রেরণ করুন নিজ দূত ॥ সহদেবে অনুজ্ঞা করেন নরপতি । পুনরপি কৃষ্ণ অগ্রে জিজ্ঞাদে যুকতি ॥ আপনি বুঝিয়া আজ্ঞা কর নারায়ণ । | কোন কোন জনেরে করিব নিমন্ত্রণ ॥ শ্ৰীকৃষ্ণ বলেন হরিশ্চন্দ্রের যে যাগ । তাহা হৈতে বিশেষ করহ মহাভাগ ॥ তার যজ্ঞে আইল যে পৃথিবী রাজন। ত্রিভুবন লোক তুমি কর নিমন্ত্রণ ॥