পাতা:কাশীদাসী মহাভারত.djvu/৭০৪

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


৬৯৪ জগন্নাথের ধ্যান—ওঁ পীনাঙ্গং দ্বিভূজং কৃষ্ণং পদ্মপত্রায়তেক্ষণং । [ মহাভারত । আপনি মরিলে ভাই, বান্ধবে মারিলে । নিজ কৰ্ম্মদোষে ভাই রাজ্য হারাইলে ॥ সসাগর। পৃথিবীর ছিল অধিকারী। ভূমিতলে পড়িয়াছ রথ পরিহরি ইন্দ্রের সমান তব প্রচণ্ড প্রতাপ । ংহাসন ছাড়ি ভুমে এই বড় তাপ । মহারাজগণ নাহি পান দরশন । রাজ্যেশ্বর হয়ে এবে ভূতলে শয়ন ॥ সহস্ৰেক বিদ্যাধরী তব সেবা করে । মোহন পুরুষ তুমি সংসার ভিতরে ॥ এবে তুমি লোটাহ পড়িয়া ভূমিতলে । পৃথিবী শাসিলে ভাই নিজ বাহুবলে । মাগিলাম পঞ্চগ্রাম কৃষ্ণে পাঠাইয়া । পাপিষ্ঠ শকুনি বাক্যে না দিলে ছাড়িয়া । ভাই হ’য়ে চণ্ডাল হইলে মহারাজ । এতেক করিয়া ভাই কি করিলে কাজ ॥ রাজার ক্ৰন্দন দেখি সকল সমাজ । পঞ্চালক সোম আর যত মহারাজ । কান্দয়ে সকল লোক যুধিষ্ঠির সনে । ভূমে গড়াগড়ি যান রাজা দুর্য্যোধনে ॥ কান্দিলেন যুধিষ্ঠির শোকে মনোদুঃখে । জানুপরে শির দিয়া কাদে অধোমুখে ॥ জ্ঞাতৃবধ তাপে ধৈৰ্য্য ধরা নাছি যায়। ভাই ভাই বলি রাজা কঁদে উভরায় ॥ রাজপাট সিংহাসন সকল ত্যজিয়া । ফুমেতে লোটাও ভাই জ্ঞান হারাইয়া । কুবুদ্ধি শুনিয়া ভাই না শুনিলে বোল । গুরুবাক্য না শুনিয়া যমে দিলে কোল ॥ রাজার লক্ষণ ভাই আছিল তোমাতে। তোমা হেন সত্যবাদী নাছি অবনীতে ॥ সমর সাগর ঘোর দেখি লাগে ভয় । একাকী করিলে রণ ভূমি মহাশয় ॥ তৰ যশ ঘুষিবেক এ তিন ভুবনে । পুত্ৰশোক ধৃতরাষ্ট্র সহিবে কেমনে ॥ কি বলিয়া প্ৰবোধিব গান্ধার জননী । কি ৰলিয়া অশ্বাসিব যতেক রমণী । এতেক বিলাপ করে ধৰ্ম্ম নরপতি । যুধিষ্ঠিরে প্রবোধেন আপনি স্ত্রপতি ॥ কি কারণে ক্ৰন্দন করহ গুণনিধি । এই দুর্য্যোধন রাজা ছুষ্টের জলধি ॥ সে কালে এ দুষ্ট না ধরিল কার’ বোল । এখন সে মহাতাপে মৃত্যু দিল কোল ॥ একবস্ত্র রজঃস্বলা দ্রুপদকুমারী। সভামধ্যে আনে তারে উপহাস করি ॥ জতুগৃহে পোড়াইল তোমা পঞ্চজনে । ভীমে বিষ দিল দুষ্ট নিধন কারণে ॥ অনেক পাপেতে রিপু গেল রসাতল । হেন ছারে বল ধৰ্ম্ম ভাই মহাবল । শ্ৰীকৃষ্ণের প্রতি দুৰ্য্যোধনের কোপ । এতেক বলেনু যদি দেব নারায়ণ । শুনি দুর্য্যোধন হ’ল অতি ক্রুদ্ধমন ॥ বাহুযুগ পৃথিবীতে জাকি দিয়া ভর। হাটু আরোপিয়া ভূমি বলে নৃপবর ॥ কহিতে লাগিল চাহি কৃষ্ণের বদন । বুঝিলাম নিজে মন্ত্রী তুমি নারায়ণ ॥ কহিলে অৰ্জ্জুনে তুমি উপদেশ বাণী । ভীমে জানাইল পার্থ চক্ষুকোণ হানি ॥ তোমার আদেশ মতে পাপী পাণ্ডুস্থত । অন্যায় সমরে বীর মারিল বহুত p কর্ণ ভূরিশ্রব সোমদত্ত গুরু দ্ৰোণ । অন্যায় সমরেতে মারিল নারায়ণ ॥ তোমার চরিত্র আমি ভালমতে জানি । পাণ্ডবের পক্ষ তুমি চিন্ত মম হানি ॥ ধিক্ ধিকৃ তোমার জীবন অকারণ । যেন আমি তেন তব পাণ্ডুর নন্দন ॥ তুমি সে মারিলা মম সকল সমাজ । আমারে মারিয়া তুমি সাধিলা কি কাজ ॥ এত শুনি কেশব বলেন অতিশয় । শুন দুষ্ট চুরাশয় গান্ধারী তনয় ॥ আপনি মরিলে তুমি অধৰ্ম্মের ফলে । দ্ৰৌপদী সতীরে চাছ করিবারে কোলে ।