পাতা:চিঠিপত্র (প্রথম খণ্ড)-রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর.pdf/২১৮

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


ঠাকুরবাড়ির বধূ, রবীন্দ্রনাথের জ্যেষ্ঠ সহোদর বীরেন্দ্রনাথ ঠাকুরের পত্নী প্রফুল্লময়ী দেবী, ‘প্রবাসী’ পত্রের বৈশাখ ১৩৩৭ সংখ্যায় প্রকাশিত “আমাদের কথা”য় সংসার-পরায়ণ গৃহবধূ মৃণালিনী দেবীর যে চিত্র অঁাকিয়াছেন তাহাও এ প্রসঙ্গে স্মরণযোগ্য : [ বলুর ] বিবাহে [ ১৮৯৫ ] খুবই ঘট হইয়াছিল।. আমার ছোটো জা মৃণালিনী দেবীও সঙ্গে যোগ দিয়া নানারকমভাবে সাহায্য করেন । তিনি আত্মীয়-স্বজনদের সঙ্গে লইয়া নানারকম আমোদ-আহলাদ করিতে ভালোবাসিতেন । মনটি খুব সরল ছিল, সেইজন্য বাড়ির সকলেই তাকে খুব ভালোবাসিতেন । —প্রফুল্লময়ী দেবী, “আমাদের কথা”, “প্রবাসী’, বৈশাখ ১৩৩৭ মন্মথনাথ ঘোষ মৃণালিনী দেবীর অভিনয়ের যে উল্লেখ করিয়াছেন ( “কবিপত্নী”, মৃণালিনী দেবী, পৃ ১৭ ) নাট্যস্মৃতি প্রসঙ্গে ইন্দিরা দেবী -লিখিত তাহার বিবরণ এ প্রসঙ্গে সংকলনযোগ্য : ‘রাজা ও রানী’ নাটক বহুবার অভিনীত হয়েছে, তার মধ্যে প্রথম অভিনয়ের একটু বৈশিষ্ট্য আছে। ...বাড়িটি [ বিজিতলা ] জীর্ণ হলেও তার সঙ্গে আমাদের সেকালের অনেক সুখস্থতি জড়িত। তারই একতলায় চওড়া বারান্দায় স্টেজ বেঁধে প্রথম, ‘রাজা ও রানী'র অভিনয় হয় । তার পাত্রপাত্রী ছিল এইরকম— বিক্রম রবিকাকা সুমিত্রা মা [ জ্ঞানদানন্দিনী দেবী ] দেবদত্ত বাবা | সত্যেন্দ্রনাথ ঠাকুর ] নারায়ণী কাকিম। [ মৃণালিনী দেবী ] —ইন্দিরাদেবী চৌধুরানী, রবীন্দ্রস্মৃতি । » ማby