পাতা:জয়তু নেতাজী.djvu/২৬১

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


পরিশিষ্ট &a> পরাজয়ের দ্বারাই স্বাধীনতা-লাত হুইয়াছে। বিড়াল কাঠের বিড়াল হইলেও ক্ষতি নাই—বছর ধরিতে পারিলেই হইল ; খুব বড় ইছরই ধরিয়াছে পৃ ইহার পর ব্রিটিশের আর বিশেষ ৰেগ পাইতে হয় নাই– কংগ্রেসের দৌড় তাহারা বুঝিয়া লইয়াছিল । তাই এক নূতন ভারত-শাসনতন্ত্র, নিজেদের প্রয়োজন মত প্রস্তুত করিয়া, কংগ্রেসকে তাঙ্ক। গলাধঃকরণ করাইল, ভারতে বাপ্তভাও সহকারে কংগ্রেল-রাজ প্রতিষ্ঠিত হুইল । তারপর মান-অভিমানের পালা আরও কিছুদিন চলিল, এমন সময়ে সহসা দ্বিতীয় মহাযুদ্ধ আরম্ভ হইয়া গেল । সেই যুদ্ধকালে কংগ্রেস একটা বড় চাল চালিতে গিয়া বানপ্রস্থ অবলম্বন করিল ; শেষে সেই কাঠের বিড়াল কেমন করিয়া স্বাধীনতা-ইন্ধর ধরিল-গান্ধী-কংগ্রেসের সেই শৌর্য্যবীৰ্য্য—সেই খন্ধর, অহিংস ও হরিজন-সেবার চাপে পড়িয়। ব্রিটিশসিংহ কিরূপ জব্দ হল স্না ভারতরাজ্য তাড়াতাড়ি ত্যাগ করিয়া গেল, তাহ আমৰা সকলেই জানি—সুভাষচঞ্জ তাহা দেখিয়া যাইতে পারিলেন না । এইরূপ স্বাধীনতা-যুদ্ধ যেমন জগতের ইতিহাসে অতুলনীয়, তেমনই এমন স্বাধীনতাও পূৰ্ব্বে কোন জাতি লাভ করিতে পারে লাই। কিন্তু এ সকল কথা সুভাষচঞ্জের গ্রন্থে নাই—তিনি কেৰল গান্ধীর রণ-কৌশল এবং গান্ধী-কংগ্রেসের অমিত পরাক্রমের কাহিনীই লিপিবদ্ধ করিয়াছেন ।

এইবার গান্ধীর “স্বাধীনতা” এবং তাছার ধর্থ ও কর্থনীতি বুঝাইবার সময় আসিয়াছে , সুভাষচজের গ্রন্থ হইতে আমি এপর্ব্যস্ত যাহা উদ্ধত করিয়াছি তাছা হইতেই আশা করি, তাছা কতকটা হৃদয়ঙ্গম হইবে ।