পাতা:বঙ্গ-সাহিত্য-পরিচয় (দ্বিতীয় খণ্ড).djvu/৪৭২

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


>8之° বগীর পলায়ন । বঙ্গ-সাহিত্য-পরিচয় । এই কথা শুনি রাজা কঁাপিতে লাগিল । ডাক দিয়া সহরের কীৰ্ত্তনীয় অনিল ॥ মহাপ্রভুর বেড়ে যায়্যা সঙ্কীৰ্ত্তন করে। রাখ মদনমোহন রাজা ডাকে উচ্চৈঃস্বরে। এখানেতে মদনমোহন জানিলা অন্তরে । রাজা প্রজায় বরগী তাড়াবার ভার দিলা মোরে। মল্লবেশ ধরে প্রভু অতি বিনোদিয়া । বর্গী তাড়াতে যান প্রভু শাখারি-বাজার দিয়া ৷ শাখারি-বাজারের লোক ঘোড়া দেখিতে পায়। ঘোড়ার পশ্চাতে তবে কত লোক ধায় ৷ মন-বেড়ার লোক ছুটিলা ঘোড়া ধরিবার তরে। কার সাধ্য ঘোড়া ধরে প্রভু যার পৃষ্ঠের উপরে। যুজ-ঘাটে যায়্যা প্রভুর ঘোড়া দাণ্ডাইল । বরগীর কর্তা ভাস্কর পণ্ডিত দেখিতে পাইল । কেহ দেখে পৰ্ব্বত-আকার যমের স্বরূপ । 曇 豪 彝 棗 এ সব দেখিয়া বগা পালাইয়া যায়। মদনমোহন ভূমে নাম্বে এমন সময় ॥ আপন হাতে পলিতা লয়্যা কামানেতে দিল । বর্গী পলাইল তাদের হাতী মরে গেল। বগী পালাল্য বলি রাজাকে খবর দিল। রাজা বলে হুকুম ছাড়া কে কামান দাগিল৷ সব গোলন্দাজ বলে আমরা নাই জানি। আপন আপন ঘাটে শব্দ মাত্র শুনি ৷ এক গোলন্দাজ বলে করিয়া প্রবন্ধ। কণমান দাগিতে পাইনু কৃষ্ণ-অঙ্গের গন্ধ ৷ এই কথা শুনি রাজা কাপিতে লাগিল। আমা-অভাগারে প্রভু দর্শন না দিল ৷ এই কথা বলি রাজা নাচিতে নাচিতে । উপনীত হৈল যেয়ে প্রভুর বেড়েতে ॥ কপাট ঘুচায়ে রাজা চারি পানে চায়। ঘাম পড়ে মদনমোহনের গায় ৷