পাতা:বঙ্গ-সাহিত্য-পরিচয় (দ্বিতীয় খণ্ড).djvu/৬৬

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


১০২২ বঙ্গ-সাহিত্য-পরিচয় । হিমকর-কিরণে নলিনী যদি জারব কি করব মাধবী মাসে (১)। অঙ্কুর তপন-তাপে যদি জারব কি করব বারিদ-মেহে (২) । ইহ নব-যৌবন বিরহে গোওয়েব কি করব সে পিয়া লেহে (৩)৷ হরি হরি কি ইহ দৈব চুরাশ । সিন্ধু-নিকটে যদি কণ্ঠ শুকায়ব কে দূর করব পিয়াসা। (৪) চন্দন-তরু যদি সৌরভ ছোড়ব শশধর বরখব আগি । চিন্তামণি যদি নিজগুণ ছোড়ব কি মোর করম অভাগী। (৫) শাঙণ মাহ ঘন বিন্দু না বরখব সুরতরু বাঝকি ছন্দে। গিরিধর সেবি ঠাম নাহি পায়ব বিদ্যাপতি রহু ধন্দে। (৬) ভাব-সম্মিলন । দারুণ ঋতুপতি যত দুঃখ দেল। হরি-মুখ হেরইতে সব দুঃখ গেল। যতহি আছিল মঝু হৃদয়ক সাধ । সে সব পূরল পিয়া-পরসাদ (৭)। রভস আলিঙ্গনে পুলকিত ভেল। অধর-পানে বিরহ দূরে গেল । (১) চন্দ্র-কিরণে পদ্ম শুকাইয় গেলে শেষে বসন্তকাল আসিয়াই বা কি করিবে ? (২) যদি স্বৰ্য্যতাপে অঙ্কুর শুকাইয়া যায় তবে বারিদ ( জলবর্ষ ) মেঘ আসিয়াই বা কি করিবে ? - (৩) আমার এই নবযৌবন যদি বিরহেই কাটাই, তবে বধুর স্নেহেই বা কি করিবে ? এই তিন ছত্ৰ পূৰ্ব্ববৰ্ত্তী একটা পদে আছে। সেখানেও ইহার অর্থ দেওয়া গিয়াছে। (৪) সমুদ্রের নিকটে আসিয়া যদি কণ্ঠ শুখায়, তবে পিপাসা কে দূর করিবে ? (৫) চন্দনতরু যদি সৌরভ ত্যাগ করে, শশধর যদি অগ্নি-বর্ষণ করে, চিন্তামণি যদি নিজগুণ ত্যাগ করে, তবে বুঝিব যে আমার কৰ্ম্মদোষেই তাহা ঘটিল। (৬) শ্রাবণমাসের মেঘ যদি বারি-বর্ষণ না করে, কল্পতরু যদি বন্ধ্যা হয়, এবং গিরিধারি-কৃষ্ণকে সেবা করিয়াও যদি স্থান না পাইলাম, তবে ইহা বিদ্যাপতির বড় বিস্ময়ের বিষয়। (৭) বঁধুর প্রসাদে।