পাতা:বিভূতি রচনাবলী (দ্বিতীয় খণ্ড).djvu/১৪

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


( २ ) विउिसूरtभद्र बिनगिनिद्र cर भीघ्र बन श्रूषकांकांtद्र अंकांनिउ शबाइ ‘इपॉइब उitरब অন্ততম—কালক্রম অনুসারে দ্বিতীয়াংশ। এই অংশের রচনাকাল ১৯২৯-এর জুন মাস থেকে ১৯৩৯-এ জায়ারি পর্যন্ত। এ সময় তিনি কলকাতায় খেলাতন্ত্র ইনস্টিটিউশানে শিক্ষৰতা করতেন এবং মেলে বাস করতেন। র্তার সাহিত্য জীবনের ইতিহাসে এই দশটি বৎসরকে স্মরণীয়তম যুগ বলে অভিহিত করা চলে। এই সময়েই পথের পাঁচালী’ প্রকাশিত হয়, SDBBDDDS DDB BBBBB DDSBBBSBBBSBBDBBB BZSDBBSDDDD প্রভৃতি সাহিত্য-পত্রিকায় তার রচনা নিয়মিত ভাবে প্রকাশিত হতে শুরু করে; এবং এই সময়েই তিনি কলকাতার প্রতিষ্ঠাবান সাহিত্যিক ও সাহিত্যরসিকদের স্বীকৃতি, প্রশংসা ও সাহচর্য অর্জন করতে সক্ষম হন। এদের মধ্যে কারও কারও সঙ্গে তার ঘনিষ্ঠ বন্ধুত্বের সম্পর্কও স্থাপিত্ত হয়। তাই বলে কোন পাঠক যদি মনে করেন 'তৃণাঞ্চুর গ্রন্থে তিনি বিভূতিভূষণের এই দশবৎসর ব্যাপী জীবনের ঘটনাবলীর একটা আম্পূর্বক বিবরণ দেখতে পাবেন তাহলে তিনি ভুল করবেন। বিভূতিভূষণ জীবন-রসিক ছিলেন। কিন্তু মাত্র ঘটনাগত জীবনের প্রতি তার একটা প্রবল ঔদাসীন্ত ছিল। যে ঘটনা চিন্তা ও অন্তর্ভূতিকে গভীরভাবে প্রভাবিত করে নী—মানুষের মনকে ঔদার্য, ব্যাপ্তি, প্রশাস্তি অথবা স্বল্প সোঁকুমার্যের দিকে প্রণোদিত করে না—সে ঘটনাকে তিনি একান্ত তাৎপর্যহীন বলেই মনে করতেন। তাই তার নায়ক-নায়িকাদের কাহিনী ঘটনা-বিবর্তনের কাহিনী নয়, চিন্তা ও অনুভূতি-বিবর্তনের কাহিনী। গল্পোপষ্ঠাসের ক্ষেত্রে কথাটা যতখানি সত্য দিনলিপির ক্ষেত্রেও ঠিক তত্তখানি, কারণ বিভূতিভূষণের ব্যক্তিসত্তা ও শিল্পীসত্তার মধ্যে বৈসাদৃশ্ব প্রায় কিছুই ছিল না। তাই "তৃণাঞ্চুরী পড়লে আমরা তার অন্তর্জীবনের পরিচয় যতখানি পাই তার তুলনায় বহির্জীবনের পরিচয় প্রায় কিছুই পাই না বলা চলে। ‘তৃণাঞ্জুর'-এ বিভূতিভূষণের মানসজীবনের বৈশিষ্ট্যটুকু প্রায় সম্পূর্ণরূপেই প্রকাশিত হয়েছে। ‘কখনো মুখে, কখনো দুঃখে, গহন পর্বতারণ্যে বা জনকোলাহল-মুখর নগরীতে, বিভিন্ন মানুষের সংস্পর্শে বা শাস্ত নিঃসঙ্গতার মধ্যে মন যেখানে নিজেকে লইয়াই ব্যস্ত ছিল—এই সৰ রচনার স্বষ্টি সেখানে। পুস্তকে বা পত্রিকায় ছাপার অক্ষরে প্রকাশের জন্য এগুলি লিখিত इब्र नांदे '-'छ्नांडूब्र' दिसूउिफूषtभन्न भएनब्र कष। এমন ভাৰে অকপটে মনের কথা এখানে তিনি খুলে বলেছেন বা বলার চেষ্টা করেছেন যে অনেক সময় তার ফলে ভাবা ও রচনাশৈলীর যথেষ্ট ক্রটি রয়ে গেছে—মকারণ বাগৰিস্তার, शूनब्रांवृद्धि cगांव, चांकषिक ब्रगांछांग, अशब्रिक्रिउ बाङिद्र.दा जलांउ घनांब फेtञ्जष अंग्लडि নানা কারণে শিল্পরসাম্বেী পাঠককে বার বার হোচট খেতে হয়। কিন্তু দিনলিপি-পাঠকের বাংলা নিতিনবাদ্যন্ধে उj दख्दा-4षांन ब्रध्नां, बैौद्धि-4षांन