পাতা:বিশ্বকোষ একাদশ খণ্ড.djvu/৫৬৭

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


পুরাণ তথা কামকৃতেলেছে সেবন বিষয়ক চ । श्:डitठः झtङ्गऎ१: निश्tः श्tनtनॆौश् ८ङद्धिनि ॥ এজৈষিশস্তে মুলঞ্চে দ্বীপরেৰিহু জঙ্গিরে ৷ সাগৰীখুত্তরে ক্ষে সপ্তর্বিত্যশ্চ দক্ষিণম্। উত্তর: সবিতু: পন্থ দেবৰানগু স স্মৃত: ॥ যত্র তে বশিনঃ সিদ্ধ বিমলা ব্ৰহ্মচারিণঃ । সন্ততিং তে জুগুল্পত্তি তন্মাষ্ম তুর্জিতন্ত তৈ: | অষ্টাণীতিসহস্রাণি তেষামপুৰ্ধয়েতসম্। উদকৃপস্থানমধৰ্ম্মণঃ শ্রিত হাতুতসংপ্লবৎ । ইত্যেতৈ: কারণৈঃ শুন্ধৈস্তেহুমুতত্বং হি ভেজিরে । चाडूठनःप्रबशनांभधुकरः बिडांबाएउ ॥” ( با باد - «» داهه ۹۲۰ مقsit) যত দিন চক্ৰতারা, ততদিন অষ্টাশীতি সহস্র গৃহমেধী মুনিগণ পুর্বের ( অর্যামার ) দক্ষিণপথ আশ্রয় করিয়া আছেন, ইহার ক্রিয়াবান বলিয়া গণ্য ও শ্মশানলাভ করিয়া থাকেন। লোকব্যবহার, ভূতারস্তুক ক্রিয়া, ইচ্ছাৰেষে রতি, মৈথুনোপভোগ, কাম ও বিষয়সেবা এই সমস্ত কারণে র্তাহার সিদ্ধ হইয়। শ্মশান লাভ করিয়া থাকেন । সেই প্রজাভিলাষী মুনিগণ স্বাপরযুগে জন্মগ্রহণ করিয়াছিলেন । নাগৰীথির উত্তরদিকে ও সপ্তর্ষি মণ্ডলের দক্ষিণদিকে যে পথ, তাহাই দেবযান নামক হুর্যোর উত্তর পথ বলিয়া কথিত । তথায় জিতেক্রিয় নিৰ্ম্মলস্বভাব সিদ্ধ ব্ৰহ্মচারিগণ বাস করেন, তাহারা সস্তান কামন করেন না ও মুডু জয় করিয়াছেন। সেই অষ্টাশীতি সহস্ৰ উদ্ধয়েত মুনিগণ প্রলয়কাল পর্যন্ত অর্থমার উত্তরপথে থাকেন। এই সকল কারণে ( অর্থাৎ উদ্ধরেতা বলিয়া ) পবিত্র হইয়া অমরত্ব লাভ করিয়াছেন। প্রলয়কাল পর্যন্ত অবস্থানকেই অমরত্ব বলা যায় । ( বিষ্ণুপুরাণ ৩.৮ অঃ, ও মৎস্তপুরাণেও ১২৪৷১০২-১১ • উক্ত শ্লোক গুলি অাছে । ) এখন আপস্তম্বের ধৰ্ম্মস্থত্রোক্ত বচন দ্বারা প্রমাণিত হইল যে, প্রকৃত প্রস্তাবে ধৰ্ম্মস্বত্র-রচনাকালে পুরাণ প্রচলিত ছিল এবং সেই পুরাণের বিষয় সামান্য ভাষা ভিন্ন অপর কোন ংশে ব্রহ্মাও, বিষ্ণু ও মৎস্তপুরাণ হইতে বিভিন্ন ছিল না । তবে এই শেষোক্ত তিন খানি পুরাণের সমস্ত অংশই ধৰ্ম্মস্বত্র রচনাকালে প্রচলিত ছিল কিনা, তাছা ঠিক হয় নাই । ব্ৰহ্মাওপুরাণের আর কে স্থানেও এইরূপ শ্লোক দৃষ্ট হয় । যথা— “অষ্টাশীতিসহস্রাণি প্রোক্তানি গৃহয়েধিনাম্। অর্থমূণে দক্ষিণ যে তু পিতৃস্থানং সমাশ্রিতাঃ ॥ দারাঞ্জিহোত্রিশস্তে বৈ যে প্রজাহেতবঃ স্থতা: { [ ఆరి ] পুরাণ গৃহমেধিনান্তু সংখোয়াঃ শ্মশানান্যাশ্রয়স্তি ষে । श्रटे*ौख्णिक्ष्टषांगि निश्ठिां ॐखब्रांङ्गtन ॥ যে শ্রয়স্তে দিবং প্রাপ্ত ঋষয় উৰ্দ্ধরেতসঃ।” (৬৫৷১৪৩-s ) ব্ৰহ্মাওপুরাণের উক্ত শ্লোকগুলির সহিত ধৰ্ম্মপুত্র-উদ্ভূত পুরাণ-বচনের যথেষ্ট মিল আছে। পদ্মাপুরাণে স্মৃষ্টিখণ্ডেও ঐরূপ প্লেtক আছে,— “অষ্টাশীতিসহস্রাণাং যতীনামূৰ্দ্ধয়েতসাম্। স্থতং যেষাং তু তৎস্থানং তদেব গুরুবাসিনীম্।।” (৩১s • ) পূৰ্ব্বেই বলিয়াছি, প্রথমে একখানি মাত্র পুরাণসংস্থিত। ছিল, তাহাই বেদব্যাসের সঙ্কলন। এখন কেহ কেহ বলিতে পারেন, সম্ভবতঃ ধৰ্ম্মস্থত্রকার সেই পুরাণসংহিত হইতেই বচন উদ্ধৃত করিয়াছেন। তখন কি এখনকার মত অষ্টাদশ পুরাণ প্রচলিত ছিল ? তাহার প্রমাণ কি ? অপিস্তম্ব-ধৰ্ম্মস্থত্রের পূৰ্ব্বে একাধিক পুরাণ প্রচলিত ছিল, তাহা উক্ত ধর্শ্বস্বত্র हहैं८ठहे छांनी शांग्न । এই ধৰ্ম্মহুত্রে স্পষ্ট ভবিষ্যৎপুরাণ হইতে প্রমাণ উদ্ধত হইয়াছে, যথা— “আতুতসংপ্লবীত্তে স্বৰ্গজিতঃ । পুনঃ সর্গে বীজার্থ ভবন্তীতি ভবিষ্যৎপুরাণে ॥" ( আপস্তম্বধৰ্ম্মস্থত্র ২২৪te-৬ ) অর্থাৎ তাহারা ( পিতৃগণ ) প্রলয় পৰ্য্যন্ত স্বৰ্গজর করিয়াছেন অর্থাৎ স্বর্গে বাস করিয়া থাকেন । পুনরায় সৃষ্টিকালে বীজার্থ হইয়া থাকেন, ভবিষ্যৎপুরাণে এ কথা আছে। ব্রহ্মগুপুরাণে ইহার বিস্তৃত প্রসঙ্গ দেখা যায় । কল্পগুণদে কৃতযুগে প্রথমে সোইস্বজৎ প্রজা: ॥ ২২ প্রাগুক্ত যা ময় তুভ্যং পুৰ্ব্বকালং প্রজাস্তু তাঃ । তস্মিন সংবর্তমানে তু কল্পে দগ্ধস্তদায়িন ॥ অপ্রাপ্ত। যগুপে লোকং জনলোকং সমাশ্রিতা: | প্রবর্তন্তে পুনঃ সর্গে বীজাখং ত। ভবন্তি ছি। বাজার্ধেন স্থিতাস্তত্ব পুনঃ সর্গত কারণাৎ। ততস্তা: স্বজামানান্ত সপ্তানাখং ভবন্তি ছি " ( অনুষঙ্গ ৮২২-২৫ ) কল্পপ্রারস্তে সত্যযুগে প্রজাপতি প্রথমে প্রজা স্মৃষ্টি করেন ; পূৰ্ব্বে যে সকল প্রজার কথা বলিয়াছি, তাহারাই সত্যযুগের প্রজা। ঐ যুগে কল্পসংবর্তমানে যাহারা তপোলোকে যাইতে ন পারিয়া জনলোকে অবস্থান করিতেছিলেন, তাছারাই সম্বর্বকাগ্নিতে দগ্ধ হইয়া বীজের জন্ত পুনরায় স্থঃ হুইল্প থাকে এবং সস্তানাদির দ্বার স্বষ্টি বৃদ্ধি করে । এখন বুঝিলাম, আপস্তম্বধৰ্ম্মস্থত্রকার কোন ( অনির্দিষ্ট ) পুরাণ ও ভবিষ্যৎপুরাণ হইতে প্রমাণ গ্রহণ করিয়াছেন । তাহার পূৰ্ব্বে পুরাণ-বিভাগ বা নানা পুরাণ প্রচলিত না হইলে