পাতা:বিশ্বকোষ চতুর্দশ খণ্ড.djvu/৫৮২

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


মানমন্দির [ ¢*~२ ] মানমোড়া অতঃপর পঞ্চকোট বা পাচেট স্লাজবংশের কীৰ্ত্তিই উল্লেখযোগ্য। ইহঁাদের রাজ প্রাসাদ ও দেবমন্দিরাদির ধ্বংসাৰশেষ এখনও সেই প্রাচীন কীৰ্ত্তির গৌরব ঘোষণা করিতেছে। রাজা রঘুনাথ-নারায়ণ সিংহদেব পঞ্চকোট হইতে কেশরগড়ে রাজপাট উঠাইয়। লওয়ায় প্রাচীন প্রাসাদ ও তৎসন্নিহিত অট্টালিকাদি জঙ্গলে পরিণ ত হইয়াছে। তৎপরে রাজ৷ নীলমণি সিংহ দেবের পিতা পুনরায় কাশীপুরে নুতন প্রাসাদ সিন্মাণ করাইজ তথায় যাইয়া বাস করেন । [পাচেট দেখ। ] পুৰ্ব্বে সমগ্র মানভূম প্রদেশ দেশীয় সামস্তরাজগণের তত্ত্বtধীনে ঘাটবালদিগের দ্বারা শাসিত হইত। ঘাটবালগণ পার্শ্ববৰ্ত্তা রাজগণের আক্রমণ ছহতে স্ব স্ব অধিকৃত জায়গীররক্ষার জন্তু বাট বা গিরিপথে অবস্থিত থাকিত । বিপক্ষগণ হইতে দেশরক্ষ। এৰং স্বদেশের দক্ষাবৃত্তি প্রভৃতি উপদ্রবअभन डाश८भब्र ७ध५ीन कार्षी छ्णि । ७ई बाएर्षाद्र खछझे তাহার জায়গীর প্রাপ্ত হইয়াছিল। ভূমিজলদারগণ এবং ; মুণ্ড ও মালুকি প্রভৃতি অনার্ধ্য সর্দারেরাও রাজার পক্ষে যুদ্ধ করিত বলিয়৷ ভূমিবৃত্তি লাভ করে । ১৭৬৫ খৃষ্টাৰো বঙ্গ, ৰেছার ও উড়িষ্যার দেওয়ানী লাভের পর, মানভূমজেলা ইংরাজের শাসনাধীন হয় । তদবধি ১৮০৫ : খষ্টাফ পৰ্য্যস্ত উহার কতকগুলি সামস্তরাজ্য বীরভূমের ও । কতকগুলি মেদিনীপুরের অন্তভুক্ত রাখিয়া বিচারকার্য্য পরিচালিত করা হয়। পরে শেষোক্ত বৎসরে ঐ রাজ্যগুলি একত্র করিয়া ইংরাজ কোম্পানী ইহাকে “জঙ্গল-মহল” নাম দিয়া একটা স্বতন্ত্র জেলারূপে গঠিত করেন । ১৮৩২ খৃষ্টাব্দের চুয়াড়-বিদ্রোহের পর, এই স্থানের শাসন-শৃঙ্খল দৃঢ়ীকরণের জন্তু কোম্পানী বাহাদুর সেনপাহাড়ী, শেরগড় ও ৰিষ্ণুপুর রাজ্য ব্যতীত, সন্তান্ত রাজ্যগুলি এবং মেদিনীপুর হইতে ধলভূম বিচ্ছিন্ন কীিয়া একত্র মানভূম জেলা গঠিত করেন। গবর্ণর জেনাবেল কর্তৃক দক্ষিণপশ্চিম সীমান্ত য়গার জন্ত জনৈক এজে ন্টের উপর এখানকার শাসনকাৰ্য্য-পৰ্যবেক্ষণের ভার অর্পিত शम्न ।। २४8७ धुंठेtएक ५थरिन ¢कोछभाद्री शणामा शब्लैग्नि षणङ्कम नम्नाङ्ग निश्ङ्ग भन्न अलङ्क छ श्हेब्राश्णि। ०४९२ খৃষ্টাম্বে সীমান্তপরিচালকের পরিবর্তে কমিলনয়-পদস্থ রাজকন্মচারীরাই এখানকার রাজকাৰ্য্যসমুহের পর্য্যৰেক্ষক হন। ১৮৭১ भूठेitक (अशांद्र गौमा निर्मिछे श्ब्र। cए ७ब्रांनैौ, cफोछमान्नैो ७ রাজস্বসম্পৰ্কীয় আদালভাদি স্থাপিত হইয়াছে। স্নানয়ও (ক্লী) মানকচুয় সহযোগে প্রস্তুত ঔষধবিশেষ । [ মাণমও দেখ। } মানমন্দির, জ্যোতিষ্কমণ্ডলীর গতিবিধি-নিরূপণের জs | čwwīfàw wyłąfÒ wùtfrizsi ( Observatory ) , { বেধ ও বেধশালা দেখ। } মানময় (ত্রি ) গৰ্ব্বযুক্ত। “তদাগতাভিনৃ বরাহতাস্থ কৃষ্ণেঙ্গয় মানময়াস্তথৈব ।” (হরিবংশ ৮৪৫৫ ) মানমহৎ (ত্রি) অত্যন্ত মানোন্নত। ' মানমোড়া, বোম্বাই প্রদেশের পুণা জেলার অন্তর্গত জুয়ারসন্নিহিত গিরিমাল। । এখানকার অম্বিকাশ্রেণীর ১১শ সংখ্যক ওহী হইতে আবিষ্কৃত শিলালিপিতে “মানমুকুড়’ ( মানমুকুট ) নামক পুরের উল্লেখ পাওয়া যায়, সম্ভবতঃ এই মানমুকুট শব্দের অপভ্রংশে মানমোড় হইয়াছে । এই গিরিমালার পাদদেশে বৌদ্ধ ও হিন্দুরাজগণের সময়ে খোদিত বহুতর "গুফ দৃষ্ট হয় । এই গুহ।-গুলির জন্ত এই গিরিমালা প্রত্নতত্বামুসন্ধিৎসুর বিশেষ দ্রষ্টব্য। ভীমশঙ্কর । 够 মানমোড়ার দক্ষিণপুৰ্ব্বসীমান্তে সমতল হইতে প্রায় দুই শত ফিট উচ্চে চৈত্য” নামে খ্যাত বহুতর বৌদ্ধ-গুহ। আছে । তাহ সাধারণ্যে ভীমশঙ্করের অংশ বলিয়া গণ । ভীমশঙ্কর গুহাগুলি জুন্নরের অৰ্দ্ধক্রোশ দক্ষিণপুৰ্ব্ব হইতে পুণরাস্তার অৰ্দ্ধক্রোশ পশ্চিমাবধি প্রায় অৰ্দ্ধক্রোশ বিস্তৃত । অতি সংক্ষেপে উক্ত গুহাবলির পরিচয় দিলাম — ১ম গুহাট লয়ন (লেনা) বা বানরবাস বলিয়া গণ্য। ইহার এক অংশে বারান্দা, অপরাংশে কুঠারী । ইহার মধ্যবৰ্ত্তী স্তম্ভাবলি প্রাচীন আন্ধ,ধরণের। য়ুটী চৈত্য । ইহার মধ্যে দাঘোব ( দেহগোপ )-রূপ পাথর আছে । এই চৈত্যের দ্বারদেশে তিন ছত্রে "সিদ্ধং উপাসকস নগমস, সভমলপুতস, পুত বীরভূতিন” এই শিলালিপি আছে । ৩য়ট একট সূত্র । এই গুহার দক্ষিণে জলের চৌবাচ্ছ রহিয়াছে। ৪র্থ ও ৫ম গুহাতেও বৃহদাকার চারিট জলাধার দৃষ্ট হয় । ৫ম গুছায় প্রাচীরের উপর “সিবসমপুতস বিভূতিনে দেয়ুধম্ম পোঢ়ি” এই লিপি উৎকীর্ণ অাছে। ৬ষ্ঠ গুহাটী “মণ্ডপ” বt বিশ্রামমণ্ডপ বলিষ্ঠ গণ্য । ইহার ছাদের দক্ষিণপ্রাচীয়ে উৎকীর্ণ “রাণে মহাখতপস সামি নহপালস আমাভ্যাস ৰচস গোতল অঙ্গমস দেয়ধৰ্ম্ম পঢ়ি মতপোচ পুনথয়বস ৪৬ কতো” এই শিলালিপি হইতে জানা যায় যে,মহাক্ষত্রপ স্বামী নছপানেক্স প্রধান মন্ত্ৰী বৎসগোত্রীয় জয়ম কর্তৃক এই মণ্ডপ ও এতৎসংअभ श्रणtथाँग्न उं९ग्रछे रुहे ब्राष्मि । १भ ७ ४भ ७शषांtब्र क७्येणैौ ८ष्ठँ ८छ्षॆ शूढैद्रि स्वीक् ि।। ५म ७ब्रि अयम् ৩ ফিট নিম্নে ৯ম গুহায় একট বৃহৎ সত্র বা ভোজমগুপ, ऐशद्र शाम जाणि ब्रl °फ रीफ़ एहे ब्रांt६ । vम ७ >म शहांद्र