পাতা:রবীন্দ্র-রচনাবলী (একবিংশ খণ্ড) - বিশ্বভারতী.pdf/৯৩

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


एफ़्रांब्र एबि ।। গভীর নিশাস ফেলে চুপটি করে ভাবে, এমন করে আর কতদিন যাবে। দূরদেশে তার আপন জনা, নিজেরই কথাটে তাদের বেলা কাটে । তারা এখন আর কি মনে রাখে এতবড়ো অদরকারি তাকে । চোখে এখন কম দেখে সে, ঝাপসা যে তার মন, ভগ্নশেষের সংসারে তার শুকনো ফুলের বন । স্টেশন-মুখে গেল চলে পিছনে গ্রাম ফেলে, রাত থাকতে, পাছে দেখে পাড়ার মেয়ে ছেলে । দূরে গিয়ে, বাশবাগানের বিজন গলি বেয়ে পথের ধারে বসে পড়ে, শূন্তে থাকে চেয়ে । उधांजटयांएक्ल ৩ জ্যৈষ্ঠ ১৩৪৪ কাঠের সিঙ্গি ছোটো কাঠের সিঙ্গি আমার ছিল ছেলেবেলায়, সেটা নিয়ে গর্ব ছিল বীরপুরুষি খেলায় । গলায় বাধা রঞ্জিা ফিতের দড়ি, চিনেমাটির ব্যাঙ বেড়াত পিঠের উপর চড়ি । ব্যাঙট যখন পড়ে যেত ধৰ্মকে দিতেম কযে, কাঠের সিঙ্গি ভয়ে পড়ত বলে । গা গা করে উঠছে বুঝি, যেমনি হত মনে, “চুপ করো" যেই ধৰ্মকানো আর চম্‌ৰণত সেইখনে । আমার রাজ্যে আর বা থাকুক সিংহভয়ের কোনো সম্ভাবনা ছিল না কখোনে । মাংস বলে মাটির ঢেলা দিতেম ভাড়ের পরে, আপত্তি ও করত না তার স্তরে ।