পাতা:প্রবাসী (সপ্তদশ ভাগ, প্রথম খণ্ড).pdf/১২০

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


১৯৭০ প্ৰবাসী—জ্যৈষ্ঠ, ১৩২৪ [ ১৭শ ভাগ, ১ম খণ্ড ২য় সংখ্যা] স্মৃতির সেীরভ বিষয়, ডাঃ ফোএলকার (Dr. Voelcker) তাহার Report হইবার পূৰ্ব্বে দেশের লোক যুদ্ধবিগ্ৰহে মারা পড়িত, আদ , এখন দেখা যাইতেছে আমাদের দেশের অন্তর্বল বড় আর উন্নতির অভাব । বে দেশের লোকসংথ্যা দুইতৃতীয়াংশ of the Improvement of Indian Agricu কাল অনশনে মরিতেছে ; অনাবৃষ্টিজনিত অস্নাভাবগ্ৰন্ত বহে। বহুজনাকীৰ্ণ এই প্ৰদেশ দক্ষ কাৰ্য্যকুশল ও জীবনধারণের নিমিত্ত মুখ্যভাবে কৃষির প্রতি নিৰ্ভর করে, সে নামক পুস্তকের দ্বিতীয় অধ্যাৱে যাহা বলিয়াছেন তাহ উল্লেখ কোন বিশেষ প্ৰদেশ নশূন্ত ন হইয় আজকালকায় দ্বিান জাতির দ্বারা অধূষিত । ইহার বিস্কৃত প্ৰান্তর দেশে কৃষিকাৰ্য্যের উন্নতি সাধন না করিলে দুৰ্দ্দশার ছায়া যে যোগ দুৰ্ভিক্ষ সমস্ত দেশব্যাপী সন্নকষ্ট জন্মায়ু । গুলি কৃষির উপযোগী যথেষ্ট উৰ্ব্বল মুক্তিকার দ্বারা আবৃত অচিরেই সেখানে আসিয়া উপস্থিত হইবে তাহার কোন Indian you or cultivator is ite য়ৈা হইতে কাৰ্ত্তিক পৰ্যাণ্ড যে সান্মাসিক দক্ষিণ-পশ্চিম স্থার বক্ষের উপর দিয়া গঙ্গা ও ব্ৰহ্মপুত্রের কাণ্ড শাখা সন্দেহ নাই । আমাদের বর্তমান কৃষিপদ্ধতি বে কতদিন good as, and in some respee be superior to, the বা প্ৰবাহ সাগৰ হইতে আমাদের দেশের উপর দিয়া বৰ্ষা জগৎপিতার অপর average British প্ৰশাখা লইয়া বহিস্থা চলিয়াছে ধরিয়া চণিা আসিতেছে তাহার কোন ইয়ত্তা নাই। অতএব farner; hile at his worst only be said that this state is broug: about largely অবিরল জলধারা বৰ্ষণ করিয়া যায়, তাহার উপরই সমস্ত কণাৰ হঁহার আকাশে নবটা প্রচুর বাধিবৰ্গণে মৃত্তিকাকে বাঙ্গলায় কৃষিকাৰ্যোর উন্নতিসাধন করিতে হইবেই। কৃষির by an absence of facilities for improvcume জন্ম probably বাঙ্গলাদেশের মৈস্তিক ধান্ত ও অন্যান্য শস্যের unequalled in any other country : and ইহার স্বাভাবি ক the উন্নতি করিতে হইলে, কৃষির উন্নতির অন্তরায়গুলি অথবা জা করে ও বালুকে শীতল রাপে you will truggl | pa ntly and uncomplainingly সম্পূৰ্ণ নিৰ্ভর করে। উত্তর-পূৰ্ব্ব বায়ুপ্রবাহ দক্ষিণ-পশ্চিম স্থাবলী নির দরিত্রেরও নিরাশ হৃদয়ে শান্তি ও তৃপ্তির অবনতির কারণগুলি দুর কবিতে ইৰে । কৃষির উন্নতির ºn the face of difficulties in a way প্ৰবাহের প্রত্যাৰত্তন মাত্ৰ । ইহা হু কাৰ্ত্তিক হইতে ক্ষমতাশালী রাজার শাসনে দেশের ould. অন্তরায়গুলি আমরা প্ৰধানতঃ দুই ভাগে বিভক্ত করিতে The native, though he মাধুরী বিস্তার করে। many be slow p an improvement, will not hesitate to adopt it if ফানের মধ্যে কিছু বৃষ্টিপাত হয় । ইহার দ্বারাই বাঙ্গলার অ্যাভ্যন্তৰীণ শান্তি চিরসংরক্ষিত। তবে কেন আনাদের এ চাহি –১। কৃষিকাৰ্য্যের উন্নতি বিসয়ে কৃষকদিগের he is cutawised that plain and বিশল্পের বিশেষ উপকার নাট চৈত্ৰ হইতে জ্যৈষ্ঠ সোনার বাঙ্গলার হারে দ্বারে দুৰ্ভিক্ষ, অনশন, অভাব, অজ্ঞতাজনিত অস্তবায়, ২ । লোকসাধারণের প্রকৃতিগত, on to this advantage পধা ভীষণ গ্ৰীষ্মকালে ভারতের মধ্যে করিয়া বুহিয়াছে ? শিল্প ও শিক্ষাবিষয়ক, সামাজিক, অৰ্থব্যবহার এবং অন্ত ভারতীয় চাৰী তাহার উৎকৃষ্ট অবং ইংরেজ কৃষকের সমকক্ষ কিথা কোন কোন বিয়ে তদপেক্ষা উন্নত তাহার নিষ্ট অব : বাঙ্গলাদেশ ও ব্ৰহ্মদেশে কিঞ্চিং জলপাত হয়, অন্যত্ৰ যাহ অনেকে বলেন ভারতের অধিবাসীর অবস্থা মন্দ কে বলে সম্বন্তীয় অভাব ও অজ্ঞতাজনিত অন্তরায় এইমাস বলা যাতে পারে দে উন্নতি করি বা সিার হয় তাহা কিঞ্চিৎকর । বঙ্গলা অধিবাসীগণ হুৈমকি পূৰ্ব্বে, দেশের লোকেরা বালি পায়ে পালি গাম্বে পাকিত , শ্ৰীসত্যেন্দ্ৰনাথ মিত্ৰ এবং সুবিধার এত অবাধ বোধ হয় তার ন মে নাই—াহা সেই মিকৃষ্ট অবস্থার কারণ ভারতীয়. রক তাছার সহ- প্ৰতি ধন্তের উপরই জীবনধারণে নিমিও সম্পূৰ্ণ নিৰ্ভর করে। কোথাও যাওদা আসা করিতে হইলে পদব্ৰজে ভিন্ন উপায় কেম দিয়া ব বে বিনা অ্যাক্ষেণে দিনগুলি দুণ । ঐ হৈায়িক শত কোন প্রকারে নষ্ট হইলে দেশ ভিক্ষে ছিল না সহরের দৃশ্য এগন কত পরিবৰ্ত্তিত হইয়াছে কাঠা দিৰে বেদনটি যার কে পরিবে দেশীয় চাৰী ছাই। যা ্ র উন্নত উপায় সৰলম্বন করিতে গিলা করিলেগু যদি বুঝিতে কন্তু পাকাবাড়ী, ট্ৰাম, গাড়ি, সত্বরের উপকণ্ঠে ধনীগণের পারে যে ঐ পাত উৎকৃষ্টত্ৰ, অথবা উহ। তথা পক্ষে সুবিধাজনক, বৃষ্টিপাত হইয় সুদৃশ্য যোঁধাধী, বাগান-বাটী—এসব ক দেশের লোকের তখন অহা অবলম্বন করিতে তাহারা তিলমান বিরক্তি করিবে না থাকে, পুৰ্ব্ববঙ্গ ও আসামে ১০০ ইঞ্চির উন্ধে সৃষ্টিপাত হয় দিনের চিহ্ন নয় ? আমরা বলি দেশের লোক ত শহরের দুইএর পরিচ্ছেদ । বাগলার চাষী-সম্প্ৰদায় সম্পূৰ্ণ বুদ্ধিমান দক্ষ কাৰ্য্য চিরাপুরি গড়পড়ত ষ্টিপাত ৪ মধ্যে বা উপকণ্ঠে বাস করে না। সেদিন ১৭৮৮ খৃষ্টাব্দের ২১শে জুন ৷ সন্ধ্যার সময় । তৎপর হইলেও, বাঙ্গলার অধিবাসীবৰ্গ ক্ৰম: বর্তনশীল কলকাতা ৬ ইঞ্চি , ফ্লাবের মাত্ৰ ২০ ইবি বৃষ্টিপাত্ত thuts” “পল্লীবাসীরাই দেশবাসী এই দেশবাসীর সারাদিন কাঠফাটা রোদ অার গুমটি গরমের পর সবে এক হইলেও এবং চাষোপযোগ দি উত্তরোক্ত বৃদ্ধি পাইতে এত অধিক বলিয়া আমাদের দেশে ধান এবং পাট চাবে , অবস্থা দেখ, গ্ৰামে যাও, প্ৰতি চাষাচাষীর নমজুরের ঠাণ্ডা হইয়া আলিতেছিল; সূৰ্য্যদেবের অন্ত যাইতে তখনও থাকিলেও, কেন যে বাঙ্গলার খাদ্যসামগ্ৰী এত দুৰ্ম্ম লা এত সুবিধা সাধারণ কৃষিকাৰ্য্য সহজ ও তাহাৰ কুটীরে উকি মারিয়া দেখ দেখিবে, ধরিত্র পিতা মাতা ঘণ্টাখানেক বাকি। বাগানের চারিধারের এলম্ গাছের হইয়া পড়িতেছে, বাঙ্গালী এত দরিদ্র হইয়া পড়িতেছে, তাহ লাফল তক পরিমাণে নিশ্চিত । কিন্তু ইহা স্মরণ রাখা সন্তানভাৱে প্ৰপীড়িত, সারাদিনের কৰ্ম্মলন্ত মুষ্টি-অল্প সকলের ঘন পাতার বুননি ভেদ কবিয়া আসাতে পড়ন্ত রোদের প্ৰত্যেক চিন্তাক্ষম ব্যক্তির চিন্তার বিশেষ কারণ হইয়া উচিত যে শস্তের পর্যাপ্ত ফলন কোন বৎসরের মোট উদৱ পূৰণে অক্ষম । তাহারা একবেলা থাইয়া কোন রকমে তেজটা আর তেমন নাই । কাজেই শেভারেল প্ৰাসাদে উঠিয়াছে এবং তাহার প্রতিকার নিরাপণ করিবার সময় বৃষ্টিপাতের উপর নিৰ্ভর করে না দি একই পরিমাণের জীৱন কাটাইয়া দিতেছে পিতামাতা মুথের গ্ৰাস ময়দানে ওই দুটি মহিলা সামান্য রোদটুকুকে অগ্ৰা করিয়া আসিতে আর মুহূৰ্ত্তমাত্ৰও বিলম্ব নাই । বৃষ্টি আয়ে আনে সমস্ত ঋতু ব্যাপিয়া হয় তাহাতে চাষের সন্তানের মুথে তুলিয়া দিয়া নিজেরা ভুক্ত রহিতেছে তাহাদের সুচিকৰ্ম্ম ও বসিবার ছোট ছোট তারিাগুলি সমূহ উপকার দশে ; আবার যদি সেই পরিমাণের দৃষ্টি জা নিবারণের কারণ দেহে নাই, রোগে চিকিৎসার লইয়া বাহির হইয়া পড়িয়াছেন ভীটির অতি সাধুত চাষোপযোগী জুন, বা সম্বন্ধে বাঙ্গলা অদৃষ্ট পাহা লে অধিক পরিমাণে পড়ে, তাতাতে চাষের সুবিধা না | সামৰ্থ্য ও সুযোগ নাই। বৰ্ষা, শীতে, জ্বরে, প্ৰপীড়িত হইয়া পাদক্ষেপেও নরম দাসের মাথাগুলি হুইয়া পঢ়িতেছে। প্ৰভৃতি ভারতের অন্যাঙ্ক প্ৰদেশ অপেক্ষা কিঞ্চিৎ প্ৰসন্ন হই। বঃ ক্ষতি হয় গ্নিদ্রের আয়ু স্বল্প হইতে স্বলতর হইতেছে জীবনে মেয়েটির ছোটখাট ছিপছিপে একহারা ধরণের চেহারা, বৃষ্টি কিছু অধিক হয় বলিয়া অজন্মােৱ সম্ভাবনা ভারতের ও দেশবাসীর অবস্থা । উৎসাহীন, মরণে আশাহীন, প্ৰাণে দুৰ্ব্বল-ইহাই ত সুগঠিত পা দু’থানি ছোট ছোট। তরুণী প্ৰবীণা আগে অল্লা প্রদেশ অপেক্ষা অন্ন, তপালি অতিবৃষ্টিতে পুৰ্ব্ববঙ্গ বাঙ্গণার কৃষিবিয়ে পৰ্য্যালোচনা করিতে হইলে, বােজলার ছবি, ইহাই আমাদের দেশ আগে ছোট তাকিরাগুলি হাতে করিয়া চলিবাছে, লরেল এবং অনাবৃষ্টিতে বাঁকুড়া কিৰূপে অশ্লাভাবে পীড়িত হইয়াছে বাঙ্গলাদেশ সম্বন্ধে মোটামুটি যে অভিজ্ঞতা থাকা প্ৰয়োজন আমাদের দেশের এই বৰ্ত্তমান অবস্থা একমাত্ৰ গাছের ঝাড়ের নীচের চালু জায়গাটি তাহার বড়ই প্ৰিয় তাহা কাহারও অবিদিত নাই। বৃটিশ সাম্ৰাজ্য স্থাপিত অাহ কতৃক পরিমাণে নাক্ত করিবার চেষ্টা করা গেল, ৰাৱণ বলিলে দি অতুক্তি হয় ) শ্ৰেষ্ঠ কারণ কৃষিকাৰ্য্যর পদ্মবনের ফুলে ফুলে রোদের খেলা সেখান হইতে দেখা যায় একক স্মৃতির সৌরভ