পাতা:বরেন্দ্র রন্ধন.djvu/২০৫

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


७कांन+अशांश-कनिद्रां । ○ ア● ক্ষুদ্র, এমন কি অৰ্দ্ধ হস্ত পরিমিতও নহে; ইহাকে ‘কড়ি বা কড়ই কেঠো বলে। ইহা পুকুরে, বিলে বা শুষ্কপ্রায় নদীর স্থির জলে পাওয়া যায়। "ইহারাও উদ্ভিদাহারী, ইহাও খাওয়া যায়। এই শেষোক্ত উভয় কেঠো আঁষ টে গন্ধ বিশিষ্ট নছে। 爐 কেঠো কুটা কিছু শক্ত । ইহারা মস্তক বাহির করিলে ধা করিয়া তাহ কাটিয়া ফেলিবে, কেন না সামান্ত ভয় পাইলেই ইহার মন্তক লুকাইয় ফেলে ৮ অতঃপর কেঠো চিৎ করিয়া ফেলিয়া বুকের খোলার ধার দিয়া একখানি স্বচাল ডগা বিশিষ্ট হাত-দা’র দ্বারা কিয়া কিয়া বুকের খোলটি বাটির উঠাইয়া ফেলিতে হয়। পরে ধারাল ছুরি দ্বারা ভিতর কুইতে মাংস কাটিয়া বাহির করিয়া লইয়া কুটিতে হয়। অনেক কেঠোর পেটে ৰহু ডিম্ব .এবং থলথলে গোছ তেল পাওয়া যায়। কেঠোর ডিম্ব খাইতে পক্ষীর ডিম্ব অপেক্ষা নীরস হইলেও নিতান্ত মন্দ নহে,—সিদ্ধ ডিম্ব একটু বেলে বেলে স্বাদ বিশিষ্ট হয়। কেঠোর তৈলও খাওয়া যায়, কিন্তু ইহার মেটেই খাইতে সৰ্ব্বাপেক্ষা স্বাদু ও চমৎকার মোলয়েম ৷ কেঠোর কালিয়া পাঠার কালিয়ার দ্যায়ই রাধিবে । কেঠোতে পেয়াজ রগুনের পরিবর্তে হিঙ ব্যবহার করিতেই সাধারণতঃ দেখা যায় এবং দধি প্রভৃতিও প্রায় ইহাতে দেওয়া দেখা যায় না। ডিম্বগুলি না কাইয়া আলহিদ কাচ রাখিয়া দিবে এবং মাংস পাক প্রায় শেষ হইয়া আসিলে তখন তাহাতে ছাড়িবে। ডিম্ব অধিক সিদ্ধ করিলে শক্ত হইয়া অখাদ্য হইয়া যায়। ১২০ ৷ পক্ষীর কালিয়া ঘুঘু, হরিয়াল, পায়র, বগেড়ী প্রভৃতি ছোট জাতীয় মেঠো পক্ষী ; বটে, ভিক্টর, কুকুট, বই, কুলাঙ, হুবরী, চিরাত, লিখ, গগনুভেড় প্রভৃতি বড় জাতীয় মেঠে পত্নী ; কাম, কচুয়, ডাহুক, বাটাম প্রভৃতি কাদা-খোচা জাতীয়