পাতা:বরেন্দ্র রন্ধন.djvu/২২১

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা হয়েছে, কিন্তু বৈধকরণ করা হয়নি।
২০১
দ্বাদশ অধ্যায়—অম্বল।

ছাড়। ফুটিলে অল্প নুণ এবং অনেকটা গুড় বা চিনি দাও। আবশ্যক মত ঘন করিয়া নামাও। ইহা মিষ্ট বা ‘মিঠে’ অম্বল হইল। নুণের তুলনায় চিনির ভাগ কম দিয়া এই অম্বল রাঁধিলে তাহা ‘খাটা’ অম্বল হইবে।

১৪১। কাঁচা তেঁতুলের অম্বল

 কাঁচা তেঁতুল খোলা সহ ধুইয়া ডুমা ডুমা করিয়া কুট। তেলে সরিষা (গোটা) ফোড়ন দিয়া তেঁতুল ছাড়। অল্প আংসাইয়া জল দাও। ফুটিলে নুণ, (হলুদ) ও অল্প পরিমাণে চিনি দাও। তরল রাখিয়াই নামাও।

 ভাদ্র মাসে নূতন ‘আউসের’ চাউলের ভাতের সহিত এই অম্বল মাখিয়া খাইতে ভাল।

১৪২। বোরের (বদরীর) অম্বল

 ফাল্গুনে বোর (বদরী) সুপক্ক হইলে তাহা রৌদ্রে উত্তমরূপে শুকাইয়া উঠাইয়া রাখিতে হয়। চৈত্র বৈশাখে—গ্রীষ্মকালে এই শুষ্ক বোরের তরল অম্বল রাঁধিয়া চুমুক দিয়া খাইতে উপাদেয়। ইহা পেট ঠাণ্ডা করে এবং তৃষ্ণা নিবারণ করে। সদ্য পক্ক বোর দিয়াও অম্বল রাঁধা যায়। শুকনা বোর ধুইয়া খানিকক্ষণ জলে ভিজাইয়া রাখিয়া পর অম্বল রাঁধিতে হয়। সদ্য পক্ক বোর অবশ্য আর ভিজাইয়া রাখিতে হয় না। তেলে সরিষা ফোড়ন দিয়া বোরগুলি ছাড়। শুকনা বোরগুলি যে জলে ভিজান হইয়াছিল ঐ জলটুকু শুদ্ধ ছাড়। আবশ্যক বোধ করিলে জল আরও দিতে পার। নুণ,(হলুদ) এবং গুড় বা চিনি দাও। প্রচুর ঝোল রাখিয়া নামাও। যারা বোরের ঘন অম্বল খাইতে ইচ্ছা করেন তাঁহারা বোরগুলি সুসিদ্ধ হইলে হাতা দ্বারা ঘাঁটিয়া ভাঙ্গিয়া অভ্যন্তরের শাঁস বাহির করিয়া দেন এবং অম্বল আবশ্যক মত শুকাইয়া থকথকে গোছ করিয়া লইয়া নামান।