পাতা:রবীন্দ্র-রচনাবলী (পঞ্চদশ খণ্ড) - বিশ্বভারতী.pdf/৫৯

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


মহুয়৷ লবণজলে ভরি আঁধার রাতে ডুবাল মোর রতনভর তরী। আবার ভাঙা ভাগ্য নিয়ে দাড়াহু দ্বারে এসে ভূষণহীন মলিন দীন বেশে । দেখি আমি নটরাজের দেউলদ্বার খুলি তেমনি করে রয়েছে ভরে ডালিতে ফুলগুলি । হেরিকু রাতে, উতল উৎসবে তরল কলরবে আলোর নাচ নাচায় চাদ সাগরজলে যবে, নীরব তব নম্র নত মুখে আমারি অঁাকা পত্ৰলেখা, আমারি মালা বুকে । দেখি চুপে-চুপে আমারি বাধা মৃদঙ্গের ছন্দ রূপে রূপে অঙ্গে তব হিল্লোলিয়া দোলে ললিতগীতকলিতকল্লোলে । মিনতি মম শুন হে সুন্দরী, আরেক বার সমুখে এসে প্রদীপখানি ধরি। এবার মোর মকরচুড় মুকুট নাহি মাথে, ধনুকবাণ নাহি আমার হাতে ; এবার আমি আনি নি ডালি দখিন সমীরণে সাগরকুলে তোমার ফুলবনে । এনেছি শুধু বীণা, দেখে তো চেয়ে আমারে তুমি চিনিতে পার কি না। ১ অক্টোবর ১৯২৭ মায়ার জাহাজ