পাতা:শিখ-ইতিহাস.djvu/৭০

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


প্রাচীন ভারতের ধর্মমত ૨ઉઃ ঈশ্বরের একত্ব ও সর্বশক্তিমত্তা বিষয়ে কিছুই জ্ঞাত নহেন। মন্দ কার্য করিলে ঈশ্বর গুরুতর শাস্তি বিধান করেন, ব্যাস এই মত প্রচার করেন। ব্যাস-প্রবর্তিত এই মতে জনসাধারণে মন্দ কাৰ্য্য করিতে অধিকতর ভীত হইত। এবিষয়ে ব্যাস প্লেটোকেও পরাজিত করিয়া ছিলেন। প্রকৃত পক্ষে, আত্মার অবিনশ্বরত্ব এবং মৃত্যুর পর দেহান্তর গ্রহণ, এই দুই মত পরস্পর জড়িত হইয়াছিল; কাৰ্য্যকরী গুণ ( কৰ্ম ) অপেক্ষ দৈহিক কষ্ট-সহিষ্ণুতা এবং মানসিক ঔদাসীন্য অধিকতর প্রশংসনীয় হইত। ১০ মানবগন পরম্পর সমান নহে, অর্থাৎ কাল্পনিক বর্ণনা সম্বন্ধে যে বুদ্ধিমত্তার প্রশংসা করিয়াছেন, (odyssey, XIV, Cowpers note, P. 48. vol ii. Edition of 1802) są z foto otąența (History of Greece i. 192 &c) «RR fù. csjfè ëet;? &fal wfûfA zsfä{va ( History of Grecce, 1. 3. and XVI Part i generally. ) ৯ । প্লেটো, কর্তব্য জ্ঞান এবং বাধ্যতা স্বীকার করিতেন না ; কিংবা তিনি কর্তব্য ও বাধ্যতার নিয়ম দৃঢ়রপে অনুসরণ করিতেন না। সক্রেটিস প্রবর্তিত প্রথানুসারে এই নিয়ম বাধাবাধিরূপে পালন করিবার কোন আবশ্বকতা নাই—এই হেতুবাদে রিটার উাহাকে এই দোষ হইতে মুক্ত করিতে বিশেষ চেষ্টা করিয়াছেন ( Ancient Philosophy, ii. 387 ) প্লেটো মনে করেন যে, এইরূপ কঠোরতায় নৈতিক দর্শনের উপযোগিতা অল্প বলিয়া বোধ হয় এবং ইহাই তাহার আপত্তির প্রধান কারণ। বেকন অতি tēHtot celtātā gÈ R5 wiềs: sqaqH șfăptuşa (Compare “Hallam's Literature of Europe, iii, 191, and Macaulay, Edinburgh Review, July, 1837, P 84.) I fre ঈশ্বরের প্রতি এইরূপ কর্তব্যজ্ঞান অমানুষিক, এবং নাস্তিকদিগের দর্শন-শাস্থের প্রথায় ইহা অনাবগুক, সামাজিক মঙ্গল কামনায় ঈশ্বরের প্রতি এইরূপ কঠোর কর্তব্য জ্ঞান সর্বতোভাবে প্রয়োজনীয় । সভ্য গ্রীস দেশে এবং আধুনিক ইউরোপ ব্যতীত সমগ্র এসিয়াখণ্ডে ‘দর্শনশাস্ত্র’ এবং তত্ত্বশাস্ত্র' পরস্পর নিকট সম্পৰ্কীয় এবং একত্র জড়ীভূত হইয়া রহিয়াছে। প্লেটাে বলেন যে, মৃত্যুর পর আত্মার বিচার আরম্ভ হয় ; বিচারানুসারে দুষ্ট ব্যক্তির আত্মা শাস্তিপ্রাপ্ত ও উৎপীড়িত হইয়া অসহ্য যন্ত্রণ ভোগ করে। ( উদাহরণ<<<f “Gorgias,' Sydenham and Taylor's Translation, IV. 451 ) wat :, &άτ*f fäywè সাধারণের পক্ষে অধিকতর ফলপ্রদ। কিন্তু গ্রীকদিগের শাস্ত্রানুসারে অবিনশ্বর মামুৰী আত্মার পরিতৃপ্তি ও উপভোগ এবং ঈশ্বরের প্রতি স্তায়পরতাই পুণ্যজনক বলিয়া কথিত হয়। ) Compare Schleiermacher's Introduction to Plato's Dialogues- P. 18.1, &c, and Ritter's Ancient Philosophy, ii. 374 ) ব্যাসদেব যে কৃতজ্ঞতা ও স্থায়পরতা-মুলক ধর্মশিক্ষা দিয়াছেন, এক্ষণে লোকে তাহাই কর্তব্য জ্ঞান বলিয়া স্বীকার করে। তাঁহাই যে তাহাদের কর্তব্য কার্য এবং তাহাতেই যে তাহারা বাধ্যতা —তাহাও স্পষ্টরূপে বলিতে পারা যায় না। সম্ভবতঃ, ভারতবাসীর পক্ষে বিবেকশাস্ত্রের উপদেশক হওয়ার পরিবর্তে তত্ত্ব শাস্ত্রোপদেশক হওয়াই অধিকতর সহজ হইতে পারে। ১• । ঈৰ্ষাপর খৃষ্টান গ্রন্থকারগণ, হিন্দু-তত্ত্বশাস্ত্র সম্বন্ধে যাহা লিখিয়াছেন, তাহাতে আত্মার দেহান্তর গ্রহণ বিষয়ে অনেক বাদামুবাদ করিয়াছেন। তাহারা বলেন যে, এই নীতি অবলম্বন করিলে মানবের ইচ্ছা-বৃত্তির স্বাধীনতার অনেকটা লাঘব হয় ; পূর্বজন্মসমূহের দোষযুক্ত আত্মা পুনঃপুনঃ পৃথিবীতে জন্মগ্রহণ করায়, পূর্ব আত্মা অপেক্ষ পর আত্মা অনেকট পৃথক বলির অনুভূত হয়। শুনা যায়, এইরূপে মনুক গ্রীক ও রোমানদিগের ভাগ্য-দেবীর বশবর্তী হইয়া থাকে। (Compare "Ward on the Hindoos' ii. Introductory Remarks, xxviii. &c). ínfj*farfyrifta wfwi পুর্ব জন্মের পাপ ভারাক্রান্ত হইলেও, পূর্ব ও পরবর্তী আত্মার মধ্যে কোন প্রভেদ নাই ; আদমের (Adam ) পাপসমূহে আত্মা কলুষিত হইলেও, বর্তমান জীবনের আচার-ব্যবহারে কোন পার্থক্য লক্ষিত হয় না। দর্শনশাস্ত্র