বাসন্তিকা

উইকিসংকলন থেকে


বাসন্তিকা

 

(গীতি-নাট্য)

 

শ্রীমণীন্দ্রনাথ সিংহ, বি, এস্‌-সি
প্রণীত।

 

রঙ্গমহলে অভিনীত
প্রথম অভিনয় রজনী—শনিবার, ১৬ই মাঘ, ১৩৩৮

 প্রকাশক—
 শ্রীনরেন্দ্র নাথ দে
১৩১।এ, বলরাম দে ষ্ট্রীট, কলিকাতা

 

চার আনা

 
 প্রিন্টার—শ্রীপুলিনবিহারী দে

 “দি ফাইন প্রিণ্টি ওয়ার্কস্‌”

৩৪৭১ নং অপার চিৎপুর রোড, কলিকাতা

বাসন্তিকা - মনীন্দ্রনাথ সিংহ ৩.tif
অগ্রজা—

শ্রীমতী নীহারবালা বসু

করকমলেষু।

দিদি

 ক’টি ঝরা ফুলে আমার এ মালা গাঁথা; জানি, এ মালা লোকচক্ষুর অন্তরালে থেকে শুকিয়ে যাবে, তবু হয় ত তোমার স্নেহধারায় সঞ্জীবিত হোয়ে এক লহমাও এর সৌরভ ব্যাপ্ত হোতে পারে তোমায় ঘিরে’—সেই ত আমার বিফল প্রয়াসের সফলতা—সেই দুরাশা বুকে কোরে রাখলাম এ মালা তোমার পায়ের তলে। ইতি—

দফরপুর, বহরকুলী
বর্দ্ধমান, ১৬ই মাঘ ১৩৩৮

স্নেহাধীন—
শ্রীমণীন্দ্র নাথ সিংহ

 

নাট্যোল্লিখিত পাত্র-পাত্রীগণ

ঋতুরাজ

দখিন্‌ হাওয়া

ঋতুদূত

শীতা

বাসন্তিকা

বকুল

বেলা

চামেলী



দু’টি কথা

‘বাসন্তিকা’—কাল্পনিক নাটিকা,

 বাস্তব জগতে এর পরিচয় মেলে না, সুতরাং সে দিক দিয়ে বিচার এর চলে না। নামের উৎপত্তি বা অর্থ হয়ত অভিধানে নাই, যেমন শীতা (শীতের রাণী)।

 মিনার্ভা ইন্‌ষ্টিটিউটের এক সাহিত্য-বৈঠকে, সমিতির সুযোগ্য সহ-সম্পাদক, আমার অকৃত্রিম বন্ধু শ্রীহরিদাস শীল এই গল্পাংশ একটি নাটিকায় ফুটিয়ে তোল্‌বার জন্য আমায় অনুরোধ করেন। তাঁরই অনুরোধে এই গ্রন্থ প্রণয়ণ, সুতরাং খ্যাতি যা’ তাঁরই প্রাপ্য আর অখ্যাপ্তি আমার অক্ষমতার পরিচয়। আমার অন্যতম সুহৎ শ্ৰীসুধীর কুমার চট্টোপাধ্যায় গ্ৰন্থ প্ৰণয়ণে বিশেষ সহায়তা কোরেছেন। আর নাটিকাকে সজীব মূৰ্ত্তিতে গড়ে তুলেছেন যে শিল্পী অক্লান্ত পরিশ্রমে, সেই সৰ্ব্বজন পরিচিত, সুগায়ক, রঙ্গমহলের নাট্যশাখা বিভাগের অধ্যক্ষ শ্ৰীরাধাচরণ ভট্টাচাৰ্য্য মহাশয়ের কাছেও আমার ঋণ কম নয়। তাই কৃতজ্ঞচিতে এঁদের ঋণ স্মরণ কোরে আমার নাটিকাকে ছেড়ে দিলাম সবার মাঝে। ইতি—

 
গ্রন্থকার।

প্ৰথম অভিনয়—রজনীর পাত্ৰ-পাত্ৰীগণ

অনুষ্ঠাতা—শ্ৰীকালিদাস গোস্বামী।
সুর-সংযোজক—শ্ৰীরাধাচরণ ভট্টাচাৰ্য্য।
প্ৰয়োজক—শ্ৰীরাধাচরণ ভট্টাচাৰ্য্য ও
 শ্ৰীহরিদাস শীল (এমেচার)।
নৃত্যশিক্ষক—শ্ৰীপাঁচকড়ি ঘোষ (ভেলুবাবু)
ঋতুরাজ—শ্ৰীনিৰ্ম্মল বসু।
ঋতুদূত—শ্ৰীনলিনীকান্ত দত্ত।
দখিন্‌ হাওয়া—শ্ৰীপাঁচুগোপাল বন্দ্যোপাধ্যায়।
শীতা—শ্ৰীমতী ইন্দুবালা।
বাসন্তিকা—শ্ৰীমতী স্নেহলতা ( কটি)।
বকুল—শ্ৰীমতী নন্দরাণী।
বেলা—শ্ৰীমতী দুৰ্গারাণী।
চামেলী—শ্ৰীমতী সরলাবালা।
অন্যান্য পুষ্পগণ—শ্ৰীমতী নীলিমা দেবী, প্ৰসাদী,
 মনোরমা, লক্ষ্মী ও পুতুল।
হায়নোনিয়াম-বাদক—শ্ৰীহরিদাস মুখোপাধ্যায়।
বংশীবাদক—শ্ৰীনেপাল চন্দ্ৰ রায়।
পিকলুইষ্ট—শ্ৰীকানাইলাল বসাক।
সঙ্গতী—শ্ৰীমন্মথ কুমার ঘোষ।
রঙ্গভূমি-সজ্জাকর—শ্ৰীযজ্ঞেশ্বর সাহা।
স্মারক —শ্ৰীসরোজ কুমার বসু।

পরিচ্ছেদসমূহ (মূল গ্রন্থে নেই)

এই লেখাটি বর্তমানে পাবলিক ডোমেইনের আওতাভুক্ত কারণ এটির উৎসস্থল ভারত এবং ভারতীয় কপিরাইট আইন, ১৯৫৭ অনুসারে এর কপিরাইট মেয়াদ উত্তীর্ণ হয়েছে। লেখকের মৃত্যুর ৬০ বছর পর (স্বনামে ও জীবদ্দশায় প্রকাশিত) বা প্রথম প্রকাশের ৬০ বছর পর (বেনামে বা ছদ্মনামে এবং মরণোত্তর প্রকাশিত) পঞ্জিকাবর্ষের সূচনা থেকে তাঁর সকল রচনার কপিরাইটের মেয়াদ উত্তীর্ণ হয়ে যায়। অর্থাৎ, ২০১৭ সালে, ১ জানুয়ারি ১৯৫৭ সালের পূর্বে প্রকাশিত (বা পূর্বে মৃত লেখকের) সকল রচনা পাবলিক ডোমেইনের আওতাভুক্ত হবে।