পাতা:শোধবোধ-রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর.pdf/১৫

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


প্রথম অঙ্ক শোধ-বোধ প্রথম দৃপ্ত চাক। ও: বুঝেছি, প্রাইভেট্ কামবায় বিচাব হবে। নেলি, আমি তা’হ’লে তৈবি হ’যে আসিগে । তোব নবাব ঘবে ট্যলেট ভিনিগব আছে তো ? নলিনী । আছে । ( চাকল প্রস্তান ) তোমাব এ কী বকম দুৰ্ব্ব,দ্ধি ? মামাব এলবম নিযে— সতীশ । লক্ষ্মীছাড়েব দান লক্ষ্মীকে পৌছয না । যেটা যাব যোগ্য নয, সে জিনিষটা তীব নয, আমি এই বুলি । নলিনী। আগৰ বগলে কবে যে নিযে যায, সেটা যে তারই এই বা কোন শাস্বে লেপে । সতীশ । তবে সত্যি কথাটা বলি। আমি যে ভীক, বেশ জোবেব সঙ্গে কিছুই দিতে পাবিনে। সেই জন্যে দিযে লজ্জা পাই । নলিনী । তোমাব এই এলবামব মধ্যে কম জোবেব লক্ষণটা কী দেখলে ? এ তো টকটকে লাল । সতীশ । লজ্জায লাল। কতবাব মনে হ’যেছিলো, এই এলবমেব মধ্যে নিজেব একখানা ছবি পূবে দিই, “আমাকে মনে বেখে৷” এই ককণ দাবীটুকু বোঝাবাব জন্তে । কিন্তু ভয হ’লো, তুমি মনে ক’বৃবে ওটা আমাব' স্পৰ্দ্ধা , খালি বেখে দিলুম, তুমি নিজে ইচ্ছে কবে যাব ছবি বাখ বে, ওব মধ্যে তাবি স্থান থাক্। নলিনী। খুব ভালো বলচো, সতীশ, ইচ্ছে ক’চে বইয়ে লিখে বাখি । সতীশ । ঠাটা কোবো না । নলিনী। অামাব আব-এক জনেব কথা মনে প’ড় চে । সে দিযেছিলো একখানা খাতা—তোমার এলবমেব মধ্যে যে-কথাটা না-লেখা [??